তৃণমূল নেতার বিরুদ্ধে ফের কাটমানির অভিযোগ। শুধু তাই নয়, দাবি মতো কাটমানি না পাওয়ায় এক ব্যক্তিকে পিটিয়ে খুনের অভিযোগ। তৃণমূল নেতার আশ্রিত দুষ্কৃতীরা ওই ব্যক্তিকে পিটিয়ে খুন করে বলে দাবি। ঘটনার জেরে এলাকায় উত্তেজনা। ঘটনায় আট জনের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। ঘটনার জেরে এলাকায় উত্তেজনা ছড়ায়। পরিস্থিতি সামাল দিতে এলাকায় মোতায়েন করা হয় পুলিশ পিকেট।
আরও পড়ুন-'লালু এখন যেখানে আছেন, সেখানেই যাবেন উনিও', নাম না করে মমতাকে হুঁশিয়ারি দিলীপের

চাঞ্চল্যকর এই ঘটনাটি ঘটেছে মুর্শিদাবাদের জঙ্গিপুরে। জানাগেছে, গোকুলনগর এলাকার বাসিন্দা সেলিম সেখ ও তার মা রেহেনা বিবির নামে প্রধানমন্ত্রী আবাস যোজনায় দুটি বাড়ি বরাদ্দ হয়। অভিযোগ, সেই বাড়ির টাকা হাতে পাওয়ার জন্য সেলিম  শেখকে অভিযুক্ত ওই তৃণমূল নেতা বারংবার কাটমানি দেওয়ার জন্য চাপ দিতে থাকে। সেক্ষেত্রে ওই দুটি বাড়ির জন্য মোট ৪০ হাজার টাকা দাবি করা হয় সেলিমের কাছ থেকে। কিন্তু সেলিম ৩০ হাজার টাকা দিতে রাজি হয়। পরে ওই তৃণমূল নেতা ও তার দলবল সেলিম শেখের বাড়িতে চড়াও হয়। তাঁকে বেধড়ক লোহার রড দিয়ে বেধড়ক মারধর করে বলে অভিযোগ। রক্তাক্ত অবস্থায় মাটিতে লুটিয়ে পড়ে সেলিম। আশঙ্কাজনক অবস্থায় তাঁকে হাসপাতালে ভর্তি করা হলে মৃত বলে ঘোষণা করেন চিকিৎসকরা।

আরও পড়ুন-বাম-কংগ্রেসের 'জোটে জট', মালদায় আসন বন্টন নিয়ে চূড়ান্ত মতানৈক্য

ঘটনার পরই মৃতের পরিবার অভিযুক্ত তৃণমূল নেতা বানী ইসরাইল ও তার সাগরেদ মানিক শেখ সহ ৮ জনের নামে লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। ঘটনার জেরে এলাকায় উত্তেজনা ছড়ায়। পরিস্থিতি সামাল দিতে এদিন গোটা এলাকায় পুলিশ পিকেট এর ব্যবস্থা করা হয়েছে। এই ব্যাপারে মুর্শিদাবাদ লোকসভা কেন্দ্রে তৃণমূল সাংসদ তথা জেলা সভাপতি আবু তাহের খান বলেন,"এসব ছোটখাটো ব্যাপার আমার জানা নেই কি ঘটেছে। কেউ জানালে সেইমতো খতিয়ে দেখে দলের তরফে ব্যবস্থা নেওয়া হবে"।