সোমবার বিধানসভা নির্বাচনের মুখে আচমকা মুর্শিদাবাদে চরম অস্বস্তিতে পড়ল সিপিএম। কার্যত বামফ্রন্টের বড়় শরিকের সঙ্গে জোটের শর্ত পুরোপুরি ভেঙে  দিয়ে মুর্শিদাবাদের দুটি বিধানসভা কেন্দ্রে প্রার্থী দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিল ফরওয়ার্ড ব্লক। 

আরও পড়ুন, টিকিট না পাওয়ার ব্যথা ভূলে মিষ্টিমুখ, বাঁকুড়ায় তৃণমূল প্রার্থী সায়ন্তিকাকে বরণ করলেন শম্পা  


জেলার নজরকাড়া দুটি গুরুত্বপূর্ণ কেন্দ্র রাণীনগর ও মুর্শিদাবাদ বিধানসভা কেন্দ্রে তারা প্রার্থী দেবে। দলীয় বৈঠকে এমনই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। এদিন ফরওয়ার্ড ব্লক সূত্রে জানা গিয়েছে, এই দুটি বিধানসভা কেন্দ্রে তাদের সংগঠন রয়েছে। তাই তারা সিপিএম নেতাদের এই দুটি আসন ছেড়ে দেওয়ার জন্য বলেছিল। কিন্তু ফ্রন্টের বড় শরিক সিপিএম তাতে কর্ণপাত করেনি। সেই কারণেই এমন সিদ্ধান্ত তারা নিয়েছে। ফরওয়ার্ড ব্লকের জেলা নেতা  স্বরূপ দেব বলেন, 'মুর্শিদাবাদে সিপিএমের পাশাপাশি আমাদের নিজস্ব ফরওয়ার্ড ব্লক দলের দীর্ঘদিনের সংগঠন রয়েছে ওই দু'টি কেন্দ্রে। তাই আমরা রাণীনগর মুর্শিদাবাদ বিধানসভা কেন্দ্রের প্রার্থী দাঁড় করানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছি।' যদিও বিধানসভা ভোটের আগে এই ঘটনায় রীতিমতো অস্বস্তিতে পড়েছে বড় শরীফ সিপিএম। সিপিএম এই বিষয়ে কোনও মন্তব্য করতে চায়নি। দলের জেলা সম্পাদক নৃপেন চৌধুরীর সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি অস্বস্তিতে পড়ে বিষয়টি এড়িয়ে গিয়ে সংবাদমাধ্যমের উদ্দেশ্যে বলেন, 'এই মুহূর্তে বিষয়টি আমার জানা নেই। খোঁজ নিয়ে দেখা হবে।'  

 

আৎও পড়ুন, 'প্রার্থী কে হয়েছে ভূলে যান-ধরুন আমি হয়েছি-জিতলে সরকারটা আমার হবে', কোতলপুরে মমতা 

 

রাজনৈতিক মহল মনে করছে, ফরওয়ার্ড ব্লকের এমন সিদ্ধান্তে মুর্শিদাবাদে জোটের জট আরও পাকালো। এমনিতেই সিপিএমের সঙ্গে কংগ্রেসের বন্ধুত্বে বেশ কিছুদিন ধরেই ফাটল দেখা দিয়েছে। দুই দলই একে অপরের বিরুদ্ধে নির্দল প্রার্থী দেওয়ার জন্য তোড়জোড় শুরু করেছে। এবার বেঁকে বসল বামফ্রন্টের শরিকদল ফরওয়ার্ড ব্লক। জেলার বাসিন্দাদের দাবি, ওই দুই বিধানসভা কেন্দ্রে ফরওয়ার্ড ব্লকের নিজস্ব ভোটব্যাঙ্ক রয়েছে। সেটা ভাগ হয়ে গেলে জোটের প্রার্থীর কপালে চিন্তার ভাঁজ পড়বে।অন্যদিকে এই দুই গুরুত্বপূর্ণ কেন্দ্রে তৃণমূল জোরকদমে প্রচার শুরু করে দিয়েছে। অনেক অভিমানী নেতাও ময়দানে নেমেছে। এই অবস্থায় কংগ্রেসের সঙ্গে বামেদের বন্ধুত্বে ফাটল তৃণমূল নেতৃত্বকে আরও বেশি স্বস্তিতে রেখেছে। সব মিলিয়ে ফরওয়ার্ড ব্লকের মুর্শিদাবাদের দুটি বিধানসভা কেন্দ্রের প্রার্থী দাঁড় করানোর ঘোষণা নতুন জল্পনা তৈরি করেছে রাজনৈতিক মহলে।