বাংলায় ভোটের আগে আবারও মাথাচাড়া দিল রেশন দুর্নীতি বিতর্ক। রেশন বিতরনের সময় ওজনে কম দেওয়া ও জালিয়াতির অভিযোগ উঠল অঙ্গনওয়াড়ি কর্মীদের বিরুদ্ধে। শাসকদলের প্রধান ঘটনার প্রতিবাদ করায় তাঁকে বেধড়ক মারধর করা হয় বলে অভিযোগ। এই ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ জানান স্থানীয় বাসিন্দারা। বিতরনের সময় পচা আলু বিচতরণ করা হচ্ছে বলেও অভিযোগ করেন স্থানীয় বাসিন্দারা।

আরও পড়ুন-মোদীর জন্য 'মাছ-আদিবাসীদের নৃত্য' আঁকা পাঞ্জাবি-শাল উপহার, তৈরি করলেন বাংলার পট শিল্পীরা

চাঞ্চল্যকর এই ঘটনাটি ঘটেছে মালদহের হরিশ্চন্দ্রপুর এলাকায়। জানাগেছে, সোমবার সকাল থেকে এলাকার মোহনপুরে একটি অঙ্গনওয়াড়ি কেন্দ্র থেকে আলু সহ অন্যান্য রেশন সামগ্রী বিতরণ করা হয়। রেশন নি,তে আসা উপভোক্তাদের অভিযোগ, রেশনে নিম্নমানের সামগ্রী বিতরণ করা হচ্ছে। শুধু তাই নয়, আলু বিতরণের সময় ওজনে কম দেওয়া হচ্ছে বলেও দাবি। শাসকদলের মহিলা প্রধান নিলুফার ইয়াসমিন ঘটনার প্রতিবাদ জানালে অঙ্গনওয়াড়ি কর্মীরা তাঁদের বেধড়ক মারধর করে বলে অভিযোগ।  এর প্রতিবাদে জানিয়ে রাস্তায় আলু ফেলে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন স্থানীয় বাসিন্দারা। 

আরও পড়ুন-পার্শ্ব শিক্ষক উপর 'পুলিশি নির্যাতনে'র বিরুদ্ধে প্রতিবাদ, 'ধিক্কার দিবস' পালন কোচবিহারে

আইসিডিএস দফতর সূত্রে জানা গিয়েছে, ওই কেন্দ্রে শিশু ও মহিলা মিলিয়ে শতাধিক উপভোক্তা রয়েছেন। স্কুলে মিড ডে মিলের মতই রান্না করা খাবারের বদলে তাঁদের রেশন সামগ্রী দেওয়া হচ্ছে। এ মাসে একসঙ্গে তিন মাসের জন্য উপভোক্তা পিছু ৬ কিলোগ্রাম করে আলু দেওয়ার কথা। তা জেনেই এদিন মোহনপুর অঙ্গনওয়াড়ি কেন্দ্রে উপভোক্তা শিশু ও মহিলারা হাজির হয়। ইলেকট্রনিক মেশিনে আলু মেপে দেওয়া হচ্ছিল। কিন্তু পরে বাড়ি থেকে ফিরে এসে উপভোক্তারা বলেন যে তাদের ওজনে কম আলু ও পঁচা আলু দেওয়া হয়েছে। হরিশ্চন্দ্রপুর-২ ব্লকের বিডিও পার্থ দাস বলেন, "কি হয়েছে খোঁজ নিচ্ছি। পরিমাণে কম ও খারাপ আলু দেওয়া হলে তা খতিয়ে দেখে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।"