শেখ হেনাঃ- মেদিনীপুর শহরে ভোট শুরু হতেই উত্তেজনা। চার্চ গেট স্কুলের বুথে বহিরাগত গেরুয়া পোশাকধারীরা ভোটকেন্দ্রে প্রবেশ করছে বলে অভিযোগ তুলে বিক্ষোভ দেখায় তৃণমূল কংগ্রেস। অভিযোগ, বুথের মধ্যে অফিসাররাও বিজেপিকে ভোট দিতে বলছেন ভোটারদের। এই নিয়ে এলাকা সরগরম হয়ে ওঠে, প্রায় পৌনে এক ঘণ্টা বিক্ষোভ চলে তৃণমূলের নেতৃত্বে। পরে গিয়ে পুলিশ ও কেন্দ্রীয় বাহিনী এলাকা মুক্ত করে। 

আরও পড়ুন, 'এমনটা সম্ভব নয়', দক্ষিণ কাঁথিতে EVM-এ তৃণমূলের ভোট চুরির অভিযোগ খারিজ কমিশনের  

 

তৃণমূল কংগ্রেসের হয়ে এই বিক্ষোভের নেতৃত্ব দেন মৌ রায়। তিনি অভিযোগ করেন, বাইরের লোক গেরুয়া পোশাক পরে ভোটার নিয়ে কেন্দ্রে ঢুকছে, এবং বলছে তিন নম্বর বোতাম টিপতে। ভেতরে থাকা অফিসারও তিন নম্বর বোতাম টেপার জন্য ভোটারদের বলছেন বলে অভিযোগ করেছেন তিনি। ভোট কেন্দ্রের বাইরে কেন্দ্রীয় বাহিনী ও কেন্দ্রীয় সরকার তথা বিজেপির হয়ে কাজ করছে বলে অভিযোগ করেছেন মৌ। একই সঙ্গে বিজেপির গুণ্ডারা ভোটের দিন যে পরিস্থিতি তৈরি করেছে, তাতে তাঁরা যদি ক্ষমতায় আসে তাহলে কী পরিস্থিতি তৈরি হবে সে নিয়েও আশঙ্কা ব্যক্ত করেছেন তিনি। 

আরও পড়ুন, সকাল থেকেই EVM বিভ্রাটে একাধিক জায়গায় বন্ধ ভোটগ্রহণ, জানুন কোথায় কোথায় 


প্রসঙ্গত,  ২৭ মার্চ শনিবার প্রথম দফায় ৫ টি জেলার ৩০ টি আসনে ভোট গ্রহন হতে চলেছে।  এদিন রাজ্য়ের ৫ জেলা পশ্চিম মেদিনীপুর (পার্ট- ওয়ান), পূর্ব মেদিনীপুর (পার্ট- টু),  ঝাড়গ্রাম, পুরুলিয়া ও বাঁকুড়ার মোট ৩০ টি আসনে ভোট গ্রহণ করা হবে। পূর্ব মেদিনীপুরের পটাশপুর, কাঁথি উত্তর, ভগবানপুর,খেজুরি, কাঁথি দক্ষিণ, রামনগর, এগরাতে ভোট হতে চলেছে। পশ্চিম মেদিনীপুরের দাঁতন, কেশিয়াড়ি, খড়গপুর, গড়বেতা, শালবনি, মেদিনীপুর কেন্দ্রে এই দফায় নির্বাচন হবে। শনিবারই নির্ধারিত হচ্ছে প্রার্থী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ভাগ্য।