২৩ জানুয়ারি কলকাতায় আসছেন মোদী। মূলত নেতাজী সুভাষ চন্দ্র বোসের (Netaji Subhas Chandra Bose) জন্মদিন উপলক্ষেই ঝটিকা সফরে কলকাতায় আসছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী (Narendra Modi)। জানা গিয়েছে,  ২৩ জানুয়ারি বিকেল ৩ টেয় দমদম বিমান বন্দরে (Dumdum Airport)  এসে পৌছানোর কথা মোদীর। জেনে নিন মোদীর কলকাতা সফরের যাবতীয় কর্মসূচি।

জানা গিয়েছে, ৩ টে ৩০ নাগাদ মোদী যাবেন জাতীয় গ্রন্থাগারে। এরপর ৩ টে ৩০ থেকে ৩ টা ৫০ মিনিটের মধ্য়ে আর্টিস্ট ক্য়াম্পে যাবেন। এরপর মূল অনুষ্ঠান নেতাজীর উপর আন্তর্জাতিক সেমিনারে ৩ টে ৫৫ থেকে ৪ টে ১০ মিনিটে যোগ দেবেন প্রধানমন্ত্রী মোদী। ৪ টা ১৫ নাগাত রওনা দেবেন তিনি ভিক্টোরিয়ার উদ্দেশ্যে। উল্লেখ্য মোদী আসার আগে ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়াল হলে বিকেল ৪ টে থেকেই অতিথিদের বসিয়ে দেওয়া হবে। ভিস্যুয়াল মন্তাজ অর্থাৎ নেতাজীর উপরে কিছু তথ্যচিত্র দেখানো হবে।


 তবে মোদী ভিক্টোরিয়ায় পৌছানোর সঙ্গে সঙ্গে সেখানে লাইভ দেখানো শুরু হবে। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ভিক্টোরিয়ায় পৌছানোর কথা ৪ টে ৩০ থেকে ৪ টে ৩২ মিনিটের মধ্য়ে। তাঁকে স্বাগত জানাতে রাজ্যের ও রাজস্থানের শিল্পীরা ড্রাম বাজাবে। এবং সেই যন্ত্রসঙ্গীত ৫ মিনিট ধরে নেতাজীর জন্মদিনের সঙ্গে মিল রেখেই বাজানো হবে। নেতাজীকে ঘিরে সেই পদর্শনী ঘুরে ঘুরে দেখবেন মোদী।

এরপর ৪ টে ৫৯ নাগাদ ভিক্টোরিয়ায় আসন গ্রহন করবেন মোদী। শুরু হবে সাংষ্কৃতিক অনুষ্ঠান। বিকেল ৫ টা থেকে ৫ টা ২০ চলবে এই অনুষ্ঠান। থাকবে সবার প্রথমে ৫০-৭৫ জন স্কুল পড়ুয়া কচিকাচারা ড্রেস পড়ে কদম কদম বাড়ায়ে যা গান পরিবেশন করবে। দ্বিতীয় গানটি হল একলা চলরে, গাইবেন উষা উথ্থুপ। এরপরে অনুষ্ঠানে আলো ছড়িয়ে দেবে সুভাষজি-সুভাষজি গেয়ে উঠবে আসামের পাপন। চতুর্থ পরিবেশনায় থাকবেন সৌরেন্দ্র-সৌমজিত, গাইবেন ধন ধান্য়ে পুস্পে ভরা। ৫ টা ২১ থেকে ৫ টা ২২ অবধি ডায়াসের জন্য আমন্ত্রিত মোদী। তাঁর কথা শুনবে সারা বাংলা। 

সেই মুহূর্তে তাঁকে স্বাগত জানাবেন  সংষ্কৃতি দফতরের মন্ত্রী। এরপর একে একে মন্তব্য রাখবে রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়, মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্য়োপাধ্যায়। এরপর নেতাজীর চিঠি (১৯২৬-৩৬) নিয়ে বইয়ের উণ্মোচন করা হবে। এরপর ৫ টা ৪৬ মিনিটে শ্রদ্ধা জানানো হবে, আইএনএ প্রবীণ এবং অন্যান্য মুক্তিযোদ্ধাদেরকে। সঞ্চালক এরপর মোদীকে ডেকে নেবেন নেতাজীকে নিয়ে তাঁর বিশেষ অভিজ্ঞতা ভাগ করে নেওয়ার জন্য। এরপর প্রজেকশন ম্যাপিংয়ের উদ্বোধন করতে রিমোট তুলে দেবেন প্রধানমন্ত্রী। এরপর ৬ টা ৫৪ নাগাদ জাতীয় সঙ্গীত গাইবেন সমবেতভাবে উষা উথ্থুপ, পাপন, সৌমজিত, অন্বেষা, সোমলতা সহ আরও অনেকে। এরপর ৬ টা ৫৯ নাগাদ অনুষ্ঠান থেকে বিদায় নেবে মোদী।   দমদম আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে রাত ৮ টার বিমানে দিল্লি ফিরে যাবেন তিনি।