বিজেপির সমর্থনে কলকাতার পথে নামছেন শোভন-বৈশাখী জুটি। দীর্ঘ জল্পনার পর কলকাতা বিজেপির পর্যবেক্ষকের দায়িত্বে রয়েছেন শোভন চট্টোপাধ্য়ায় এবং আপ্তসহায়ক রয়েছেন তাঁর বান্ধী বৈশাখী বন্দ্য়োপাধ্য়ায়। সোমবার খিদিরপুরে অরফ্যানগঞ্জ রোড থেকে পদযাত্রা করবেন শোভন-বৈশাখী জুটি। তাঁদের বেহালায় স্বাগত জানালেন শোভনের স্ত্রী রত্না চট্টোপাধ্য়ায়।

আরও পড়ুন-ভোটের আগে ফের নবান্ন অভিযানের ডাক, ১১ ফেব্রুয়ারি বামেদের কর্মসূচিতে আমন্ত্রিত কংগ্রেসও

এদিন খিদিরপুরের অরফ্যানগঞ্জ থেকে বাইকে র্যালি করবে বিজেপি। সেই রোড শোয়ে উপস্থিত থাকবেন বিজেপির কেন্দ্রীয় পর্যবেক্ষক কৈলাস বিজয়বর্গীয়। এছাড়াও বিজেপির অন্যান্য নেতারাও থাকবেন রোড শোয়ের মূল আকর্ষণ শোভন-বৈশাখী জুটি। বেহালা পূর্বের বিধায়ক শোভন চট্টোপাধ্য়ায়। কিন্তু ওই এলাকায় রোড শো করছে না বিজেপি।  রোড শো এলাকার কাছাকাছি গেলেও অন্য রাস্তা দিয়ে ঘুরবে। এই বিষয়ে শোভন-বৈশাখী জুটিকে কটাক্ষের রত্না বলেন, উনি যদি বেহালায় আসতেন। তাহলে আমরা স্বাগত জানাতাম। 

আরও পড়ুন-শুভেন্দুকে দাওয়াই দিতে রণকৌশল তৃণমূলের, টেক্কা দিতে মাঠে নামলেন অখিল গিরির ছেলে

শোভন বিজেপিতে যোগদান নিয়েও তীব্র কটাক্ষ করেন স্ত্রী রত্না। তিনি বলেন, বেহালার মানুষ ওনাকে ভোট দিয়েছিলেন। সেই বেহালার মানুষকেই তিনি ছেড়ে পালিয়ে গিয়েছেন। ২০১৯ সালে লোকসভা ভোটের পর ১৪ অগাস্ট বিজেপিতে যোগদান করেছিলেন শোভন-বৈশাখী। গেরুয়া শিবিরে তাঁরা নাম লেখালেও তাদের কর্মসূচি থেকে অনেক দূরে ছিলেন তাঁরা। তা নিয়ে নানান টালবাহানা দেখা গিয়েছে। এবার একুশের ভোটের আগে শোভন-বৈশাখী জুটিকেই দলের দায়িত্ব দিয়েছে বিজেপি। সেই দায়িত্ব পাওয়ার পর এই প্রথমবার প্রকাশ্যে রোড শো করবেন তাঁরা।