'নেত্রীর দেওয়া প্রার্থী মানছিনা মানব না', মমতার বিরুদ্ধে আওয়াজ তুলে বিক্ষোভ সমাবেশ তৃণমূল কর্মীদের।  তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দোপাধ্যায় সম্পূর্ণ অগনতান্ত্রিক ভাবে প্রার্থী তালিকা তৈরি করে ইটাহারের দলীয় বিধায়ক অমল আচার্যকে বাদ দিয়ে মোসারফ হোসেনকে প্রার্থী করেছেন। এমনই গুরুতর অভিযোগ তুলে রায়গঞ্জের ইটাহারে জমায়েত করে বিক্ষোভ সমাবেশ করল তৃণমূল কংগ্রেস কর্মীরা।

আরও পড়ুন, মোদীর ব্রিগেড-সমাবেশ ঘিরে প্রস্তুতি তুঙ্গে, জনজোয়ার আনতে ৩ টি ট্রেন ভাড়া করল BJP 


 ইটাহার ব্লক তৃনমূল সভাপতি দুলু গাঙ্গুলির নেতৃত্বে কয়েক হাজার তৃনমূল কর্মী সমর্থক বিক্ষোভ সমাবেশে আওয়াজ তোলে নেত্রীর দেওয়া প্রার্থী মানছিনা মানবনা। বিক্ষোভ সমাবেশে উপস্থিত ছিলেন খোদ বিধায়ক অমল আচার্য ।  রীতিমতো দলে বিদ্রোহ শুরু করে দেন ইটাহারের বিধায়ক তথা জেলা তৃনমূল কংগ্রেসের চেয়ারম্যান অমল আচার্যের অনুগামীরা। তাঁদের দাবি অতি শীঘ্রই তৃনমূল কংগ্রেস সুপ্রিমো মমতা বন্দোপাধ্যায় এই প্রার্থী বাতিল করে অমল আচার্যকে প্রার্থী না করলে দলের সমস্ত কর্মীদের নিয়ে বসে আলোচনা করে পরবর্তী পদক্ষেপ নেওয়া হবে। ইঙ্গিত নির্বাচনী ময়দানে নির্দল হিসেবে লড়াই করার। 

 

আরও পড়ুন, নবান্ন অভিযানে নিখোঁজ সিপিএম কর্মী উদ্ধার বালি স্টেশনে, ২৩ দিন কোথায় ছিলেন দীপক 

 

ইটাহার ব্লক তৃনমূল কংগ্রেস সভাপতি দুলু গাঙ্গুলি বলেন, আমরা মমতা বন্দোপাধ্যায়ের এই অগনতান্ত্রিক সিদ্ধান্ত কিছুতেই মানবনা। মিডিয়ার মাধ্যমে মুখ্যমন্ত্রীর কাছে এই বার্তা দিতে চাই অবিলম্বে ঘোষিত প্রার্থী বাতিল করে পুনরায় অমল আচার্যকে ইটাহার বিধানসভা কেন্দ্রের প্রার্থী করা হোক। আর যদি তা না হয় তাহলে ইটাহার ব্লকের সমস্ত তৃনমূল অঞ্চল সভাপতি ও তৃনমুল কর্মীরা আলোচনায় বসে অন্য কোনও সিদ্ধান্ত নিতে ব্যাধ্য হবে। তৃনমূল কংগ্রেস কর্মীদের এই বিদ্রোহ প্রসঙ্গে ইটাহারের তৃনমূল প্রার্থী মোসারফ হোসেন বলেন, দলে কেউ আমি নই, আমরা। বিদায়ী বিধায়ক এবং নবীন প্রবীন সমস্ত তৃনমূল নেতা কর্মীদের সাথে নিয়ে নির্বাচনী লড়াইয়ে নামব।