মোদী-শাহকে কুমড়ো দিয়েই আক্রমণ করলেন মদন। আজ্ঞে না যা ভাবছেন, তা নয়। সরাসরি কুমড়ো তুলে দিল্লি পাঠাননি মদন। তবে কৌতুকে ভরা কুমড়ো দিয়ে গানের ভিডিও করে বিজেপির কেন্দ্রীয় নের্তৃত্বকে ভোটের তোপ দেগেছেন প্রাক্তন পরিবহণ মন্ত্রী মদন মিত্র।

আরও পড়ুন, 'দীনেশকে শুধু নোবেল দেওয়াই বাকি ছিল মুখ্যমন্ত্রীর', 'বিশ্বাসঘাতক' তকমা দিলেন মদন  

 

 

 

গানের ভিতরে মদন মিত্র বলছেন,' কমুড়ো ফুলো ফুলো-অনেক টাকায় বিক্রি হল। সঙ্গে কিছু ঢেঁড়শ-মুলো, জিতবি বলে ভাবলি। ওয়ে লাভলি', বলে বিচিত্র শব্দে সহাস্য়ে গান ধরেছেন মদন মিত্র। স্টুডিওতে গিয়ে দিব্য়ি গান রেকর্ড করেছেন। এখানেই শেষ নয় বাংলার এক বাঁশি শিল্পী এই গানে যন্ত্রসঙ্গীতে রয়েছেন। মূলত কাকদ্বীপের বাসিন্দা তিনি। উল্টোডাঙা স্টেশনের কাছে ভিক্ষাবৃত্তি করে দিন গুজরান করেন তিনি। তাঁর সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দিয়ে সটান মমতা বন্দ্য়োপাধ্যায়ের মা-মাটি-মানুষের সরকারের সংষ্কৃতি কথা মনে করিয়ে দিয়েছেন।  ইতিমধ্যেই এই গান এখন ভাইরাল। 

আরও পড়ুন, 'দলকে রাস্তায় এনে দাঁড় করিয়েছেন','ব্ল্যাকমেলটা কে করেছে'- মতুয়াদের CAA ইস্যুতে তোপ শান্তনুর 

 

 

কাঁকিনাড়ায় এই গানের ভিডিও অ্য়ালবামটি প্রকাশ করেছেন মদন মিত্র। সেখানে দাঁড়িয়েই কুমড়ো নিজে হাতেই কেটেছেন তিনি। করছেন কুমড়ো হাতে নাচও। এরপর তিনি কুমড়োর ঘ্যাটও খাওয়ালেন উপস্থিত অনেকেকই। এদিকে সাফ জানালেন পচা কুমড়ো, ঢ্য়াড়শ দিয়ে যে ঘ্যাট রান্না করছে বিজেপি, তা মানুষ মুখেও নেবে না। তবে শুধু মদন মিত্রই নন, ভোটের আগে অভিনব প্রচারে ময়দানে নেমেছেন আরও অনেকেই। বিজেপির কৈলাস বিজয়বর্গীয় যেমন একটি সভায় সম্প্রতি মহম্মদ রফি সাহেবের গান গেয়েছেন। অনেকে আবার উত্তেজনার বসে উদ্দাম নাঠও করেছেন। তবে পরে তা শিরোনামে আসতেও দেরি হয়নি।