শুভজিৎ পুততুণ্ড, বারাসত-আর মাত্র কয়েক মাসের অপেক্ষা রাজ্যে বিধানসভা ভোট। বাংলা দখল করতে সাংগঠনিক শক্তি বৃদ্ধি করছে বিজেপিও। নবান্ন দখলের লড়াইয়ে রণকৌশল ঠিক করতে দিল্লি থেকে কলকাতায় ঘাঁটি গেড়েছেন কেন্দ্রীয় নেতারা। কিন্তু ভোট যতই এগিয়ে আসছে, ততই প্রকাশ্যে আসছে বিজেপির গোষ্ঠী কোন্দল। বসিরহাটে নিজেদের দলীয় কার্যালয়ে তালা ভেঙে নতুন তালা ঝোলাল বিজেপি কর্মী সমর্থকদের একাংশ। কিন্তু কী কারণে এই ঘটনা?

আরও পড়ুন-PK-কে 'ভাড়াটে' বলে কটাক্ষ, দল ছাড়ার ইঙ্গিত তৃণমূল বিধায়ক জটু লাহিড়ীর

জানাগেছে, বসিরহাটে বিজেপির সাংগঠনিক জেলার সভাপতি তারক ঘোষের অপসারণ দাবি জানিয়েছেন বিজেপি নেতা কর্মীদের একাংশ। বসিরহাট টাউন এলাকায় বিজেপি পার্টি অফিসের সামনে তীব্র বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন বিজেপি কর্মী সমর্থকরা। তাঁদের অভিযোগ, সাংগঠনিক জেলা সভাপতি তারক ঘোষ, দলের প্রকৃত নেতাদের সম্মান দিচ্ছেন না। নিজের ইচ্ছেমতো সংগঠনের কাজ করে চলেছেন। এরই প্রতিবাদে ফেস্টুন ব্যানার নিয়ে জেলা পার্টি অফিসের সামনে বিক্ষোভ সমাবেশ করেন বিজেপি নেতাকর্মীদের একাংশ। মিনাখা ব্লকের বিজেপি নেতা রাজু পাইক ও দুলাল রায়ের নেতৃত্বে অবস্থান বিক্ষোভ করেন নেতাকর্মীরা।

আরও পড়ুন-'যারা তাঁদের সঙ্গে আছেন, তাঁরাও তাঁদের সঙ্গে নাই', কৌতুক-হেঁয়ালিতে মমতাকে তোপ দিলীপের

শুধু তাই নয়, বসিরহাট জেলা বিজেপির সাংগঠনিক সভাপতির  বিরুদ্ধে ক্ষোভ প্রকাশ করে বিজেপি কার্যালয়ের পার্টি অফিসের তালা ভেঙে নতুন তালা ঝোলানো হয়। অন্যদিকে, জেলার সাংগঠনিক সভাপতি তারক ঘোষের বিরুদ্ধে ক্ষোভ প্রকাশ করেন অন্য়ান্য আটটি ব্লকের মণ্ডল সভাপতিরা। সন্দেশখালি, মিনাখা, হাড়োয়া, হিঙ্গলগঞ্জ, বিজেপির মণ্ডল সভাপতিরা মুখে কালো কাপড় বেঁধে দলীয় কার্যালয়ের সামনে বিক্ষোভ দেখান। জেলা সাংগঠনিক সভাপতি তারক ঘোষের বিরুদ্ধে প্রধানমন্ত্রী আবাস যোজনায় টাকা নয়ছয় ও একশো দিনের কাজে দুর্নীতির অভিযোগে সরব দলীয় কর্মীরাই।