বিধানসভা ভোটের আগে জোরকদমে শুরু হয়েছে আক্রমণ পালটা আক্রমণ। শুভেন্দু সহ অন্যান্য তৃণমূল নেতারা একে একে বিজেপিতে যোগদানের জল্পনা শুরু হয়েছে। সেই সময় মমতা বন্দ্যোপাধ্য়ায়কে নিশানা করে তীব্র আক্রমণ করলেন দিলীপ ঘোষ। 

আরও পড়ুন-রাজ্যপালকে শুভেন্দুর চিঠি, দ্রুত ব্যবস্থা নিতে মুখ্যমন্ত্রীকে অনুরোধ করলেন রাজ্যপাল

আরামবাগে দলীয় কর্মিসভা করেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। তিনি বলেন, যাঁদের কোনও বিকল্প নেই। তাঁরা কোথায় যাবেন। লোকসভায় ১৮টি আসন জিতেছে ভারতীয় জনতা পার্টি। মানুষ বিশ্বাস করতে শুরু করেছে বাংলার উন্নয়ন করতে পারবে বিজেপি। তাই তাঁরা আমাদের দলে আসছেন। তৃণমূল নেতাদের পাহারা দিচ্ছে পুলিশ-সিআইডি। যাতে তাঁরা পালিয়ে না যায়।

আরও পড়ুন-শুভেন্দু তো একা নয়, লাইন অনেক লম্বা, তৃণমূল যাই বলুক ভাঙনে ভয় অন্তরে

পাশাপাশি, তিনি আরও বলেন, বিজেপি মারবে বলে নয়। তৃণমূলকে আমাদের মারতে হবে না। মানুষই তৃণমূল নেতাদের জামাকাপড় খুলে নেবে। কিন্তু, ওঁরা বিজেপিতে যাতে যোগ না দেয়। সেজন্য পুলিশ পাহারায় রাখা হয়েছে তাঁদের। প্রসঙ্গত, শনিবার অমিত শাহের রাজ্য সফরের আগে বহু তৃণমূল নেতা বিজেপিতে যোগদান করতে পারেন বলে জল্পনা শুরু  হয়েছে। দলের বিরুদ্ধে বিদ্রোহ ঘোষণা করেছেন একাধিক তৃণমূল নেতা। এই অবস্থায় তৃণমূলের অন্দরেই ভয় ধরেছে বলে মনে করছে রাজনৈতিক মহল।