মাত্র ১০ মিনিট, আর তাতেই খেল দেখিয়ে দিল ঝড়। পুজোর আমেজে কার্যত বড়সড় ধাক্কা খেল বসিরহাট। অষ্টমীর দুপুরে দশ মিনিটের এই ঝড়ের তাণ্ডবে ভেঙে পড়ল বেশ কিছু পুজো প্যান্ডেল। 

পুজোতে যে বর্ষাসুর ভোগাবে, সে পূর্বাভাস আগে থেকেই দিয়ে এসেছে হাওয়া অফিস। এবং সেই পূর্বাভাস বা বলা ভালো আশঙ্কাকে সত্যি করে বৃষ্টি এসেছে নিজের খুশিতে। কখনও রোদ, কখনও বৃষ্টি, গত কয়েকদিনে এমনই খামখেয়ালি আবহাওয়ার সাক্ষী থেকেছে রাজ্যবাসী। মাঝে দুদিন রোদের তেজ অন্য বার্তা দেওয়ার চেষ্টা করলেও, সপ্তমীর সকালের বৃষ্টি ভালোভাবেই তার অস্তিত্বের জানান দিয়েছে। 

আকাশ কালো করে ঝেঁপে বৃষ্টি, আশঙ্কা সত্যি করে তাল কাটল পুজোর ছন্দে

এদিকে, অষ্টমীতেও ব্যতিক্রম নয় পরিস্থিতি। পূর্বাভাস অনুযায়ী রাজ্যের বিভিন্ন স্থানে বজ্র বিদ্যুৎসহ বৃষ্টি ভালোমতোই ভিজিয়ে দেয় রাজ্যবাসীকে। জানা যায়, পুরুলিয়া, বাঁকুড়া, পশ্চিম বর্ধমান, হাওড়া, নদিয়া, উত্তর এবং দক্ষিণ ২৪ পরগণা এবং দক্ষিণ কলকাতার বেশ কিছু স্থানে বৃষ্টি হতে পারে। শুধু তাই নয়, আগামী ১-২ ঘন্টার মধ্যেই উত্তর কলকাতার কিছু স্থান, হুগলি এবং পূর্ব বর্ধমানও ভিজতে পারে বলে জানা যাচ্ছে। 

আর এরইমধ্যে বসিরহাটে ঘটে গিয়েছে এক অন্য কাণ্ড। ১০ মিনিটের ঝড়ের তাণ্ডবে সেখানে হুড়মুড়িয়ে ভেঙে পড়েছে পুজো প্যান্ডেল। বলা যায়, এতোদিনের প্রস্তুতি চোখের নিমেষেই ধূলিস্যাৎ হয়েছে এই স্থানে। ভেঙে পড়া বাঁশ ছড়িয়ে ইতস্তত। আর তাকে ঘিরেই অনেকের আনাগোনা, সেই সঙ্গে চোখে মুখে হতাশার ছবি ধরা পড়ল। বলাই যায়, বর্ষাসুর তার নিজের নিয়মেই খেল দেখাচ্ছে পশ্চিমবঙ্গের বিভিন্ন প্রান্তে।