জঙ্গল থেকে বেরিয়ে রাস্তার উপর তাণ্ডব চালাল একটি হাতি। রাস্তার উপর হাতি দেখে বাইক রেখে চম্পট দিলেন চালক। শুধু তাই নয়, হাতি দেখে দাঁড়িয়ে থাকা একটি অ্যাম্বুল্যান্সের উপরও হামলা চালাল হাতিটি। রাস্তায় চলতে চলতে কার্যত দাদাগিরি চালাল হাতিটি। রাস্তার ধারে জল আনতে গিয়ে হাতির তাড়া খেয়ে ঝকম হলেন এক ব্যক্তি।

আরও পড়ুন-রেলকর্মীর শ্লীলতাহানি-মারধরের অভিযোগ, দিদিকে বাঁচাতে গিয়ে আক্রান্ত নির্যাতিতার ভাই

ঘটনাটি ঘটেছে বাঁকুড়ার বিষ্ণুপুর থানার অন্তর্গত সাবড়াকোনার দালালডাঙা এলাকায়। জঙ্গল দলছুট হওয়ায় হাতিটি রাস্তার উপর চলে আসে। সেখানে দাঁড়িয়ে থেকে আসা যাওয়ার গাড়ি গুলির উপর তাণ্ডব চালায় সে। এক ব্যক্তি রাস্তার ধারে জল আনতে গেলে সেও হাতির সামনে পড়ে যায়। প্রাণ বাঁচাতে কোনও রকমে পালানোর চেষ্টা করলে পড়ে গিয়ে জখম হন তিনি। অন্যদিকে, রাস্তার উপর আচমকা হাতি দেখে অ্যাম্বুল্যান্সটি দাঁড় করিয়ে দেয় চালক। সেটিকেও রেয়াত করল না হাতিটি। সুঁড় দিয়ে অ্যাম্বুল্যান্সটিকে ওল্টানোর চেষ্টা করে। সেসময় এক ব্যক্তি তাড়া করলে হাতির অ্য়াম্বুল্যান্স ওলটানোর চেষ্টা ব্যর্থ হয়। যদিও ওই অ্য়াম্বুল্যান্সে কোনও রোগী ছিল না।

আরও পড়ুন-ভার্চুয়ালে এবার পুরুলিয়ার দুর্গাপুজো, ফেসবুক, ইউটিউবে সরসরি দেখতে পাবেন দর্শকরা

রাস্তার উপর কমপক্ষে পাঁচ মিনিট ধরে দাদাগিরি চালায় হাতিটি। তা লুকিয়ে দেখল স্থানীয় বাসিন্দা ও পথ চলতি মানুষ। রাস্তার উপর চলতে চলতে এক বাইক আরোহীর উপর হামলা চালায়। বাইকটিকে রাস্তার উপর উল্টে দেয়। ওই বাইক চালকের কোনও ক্ষতি হয়নি। রাস্তায় কুড়ি মিনিটের হাঁটা পথে দাদাগিরি করে অবশেষে জঙ্গলে ঢুকে পড়ে হাতিটি।