প্রতীক্ষা চলছিল চাতকের মতো। তাপপ্রবাহ থেকে যেন নিস্তার পাচ্ছিলেন না রাজ্যের মানুষ। তবে খানিকটা স্বস্তি দিয়ে উত্তরবঙ্গে দিন দুই আগে বর্ষা শুরু হলেও দক্ষিণবঙ্গে তার কোনও দেখা মিলছিল না। বুধবার ও বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার দিকে বৃষ্টি নামলেও তা যথেষ্ট ছিল না। কারণ, গরমের থেকেও বেশি ক্লান্ত করে দিচ্ছিলেন আপেক্ষিক আদ্রতা। ফলে, ঘেমে নিয়ে একসা হয়ে যাচ্ছিলেন সকলে। কলকাতা থেকে শুরু করে দক্ষিণবঙ্গের সব জেলাতেই এমন আবহাওয়া প্রত্যক্ষ করা গিয়েছে। এখন যা খবর তাতে কলকাতা ও দক্ষিণবঙ্গে দক্ষিণ-পশ্চিম মৌসুমী বায়ুর প্রবেশ ঘটেছে। যার ফলে শুক্রবার সকাল থেকেই কলকাতা-সহ দক্ষিণবঙ্গের বিভিন্ন জেলা-তে বৃষ্টি হচ্ছে। 

আরও পড়ুন- শীগগির আসছে বর্ষা! কখন শুরু হবে বৃষ্টি জানাল হাওয়া অফিস

বলতে গেলে কলকাতা ও দক্ষিণবঙ্গের সমস্ত জেলাতেই বিক্ষিপ্ত এই বৃষ্টি হলেও তাতে বেশ জোরই রয়েছে। কোথাও কোথাও তীব্র আকারে বারিধারা হয়েছে। আবহাওয়া দফতরের যে পূর্বাভাস শুক্রবার ভোরে দেওয়া হয়েছিল তাতে জানানো হয়েছে বাংলার দিকে দক্ষিণ-পশ্চিম মৌসুমী বায়ুর অগ্রগতি ঘটেছে। এর ফলে জলপাইগুড়ি, কালিম্পং, দুই ২৪ পরগণা-য় তীব্র বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে। এছাড়াও গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গ এবং বঙ্গোপসাগর তীরবর্তী অঞ্চলগুলিতেও বৃষ্টি হবে বলে জানানো হয়েছে এই পূর্বাভাসে। 

আরও পড়ুন- দশ বছরের রেকর্ড ভাঙল বর্ষা, সামনে এখন শুধু '৮৩ সাল

আবহাওয়া সতর্কীকরণে মৎস্যজীবীদের শনিবার পর্যন্ত সমুদ্রে যেতে বারণ করা হয়েছে। দিঘাতেও জারি করা হয়েছে সতর্কতা। সৈকতের নিরাপদ স্থান ছাড়া পর্যটকদের সমুদ্রে নামার ক্ষেত্রে সতর্কতা জারি হয়েছে। যদিও, পুরুলিয়া ও বীরভূম এখনই তাপপ্রবাহের হাত থেকে রক্ষা পাচ্ছে না বলেও আবহাওয়ার পূর্বাভাসে জানানো হয়েছে। আবহাওয়া দফতর জানিয়েছে, পূর্ব মধ্যভারতের উপর ঘূর্ণাবর্ত তৈরি হয়েছে। এছাড়াও বঙ্গোপসাগরের উপরে একটি নিম্নচাপ তৈরি হয়েছে। এই দুইয়ের যোগেই এই বৃষ্টি। এর সঙ্গে দক্ষিণ-পশ্চিম মৌসুমাী বায়ুর অগ্রসর হওয়াটা অন্যতম ফ্যাক্টর হয়েছে এই বৃষ্টিতে। কিন্তু, পশ্চিমবঙ্গে বর্ষা ঢুকে গেল এমন কোনও নিশ্চিত খবর জানায়নি আবহাওয়া দফতর। যদিও, আবহবিদদের মতে বর্ষা রাজ্যে ঢুকে গেল তা বলা যায়। কারণ, দক্ষিণ-পশ্চিম মৌসুমী বায়ুর যত অগ্রসর হবে ততই রাজ্যের আকাশে জলকণাযুক্ত বাতাসের আবির্ভাব বাড়বে। এই মুহূর্তে ঘূর্ণাবর্ত ও নিম্নতচাপের সাহায্য নিয়ে পশ্চিমবঙ্গে বর্ষার বৃষ্টি ঘটাচ্ছে দক্ষিণ-পশ্চিম মৌসুমী বায়ু। এমনও দাবি করছেন আবহবিদরা। এই ধরণের আবহাওয়া সোমবার পর্যন্ত থাকবে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া দফতর। রবিবার ও সোমবার কলকাতা ও দক্ষিণবঙ্গের কয়েক জেলায় ভারী বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনার কথাও জানানো হয়েছে।