ফের বেআইনি অস্ত্র ব্যবসার পর্দাফাঁস উত্তর চব্বিশ পরগণার বসিরহাটে। এবার বিজেপি-এর অফিস সচিব বাপিন দাসকে গ্রেফতার করল পুলিশ। ধৃতের বাড়িতে মিলল একটি বন্দুক ও পাঁচ রাউন্ড গুলি।

আরও পড়ুন: এগরায় বিজেপি-তৃণমূল সংঘর্ষে ১ জনের মৃত্যু, আহত ২০

জানা গিয়েছে, উত্তর ২৪ পরগনার বিভিন্ন প্রান্তে থেকে অস্ত্র ও গুলি আনা হত বাংলাদেশ সীমানা লাগোয়া বসিরহাটে। বেআইনি অস্ত্রের ব্যবসা চলত বসিরহাটের ঘড়িবাড়ি এলাকায়। ভিন রাজ্য তো বটেই, বাংলাদেশের বিভিন্ন এলাকায় দুষ্কৃতীদের কাছে পাচার হয়ে যেত আগ্নেয়াস্ত্র ও গুলি। গোপন সূত্রে খবর পেয়ে তদন্তে নামে পুলিশ। জানা যায়, বসিরহাট মহকুমার বিজেপি অফিস সচিব বাপিন দাস এই বেআইনি কারবারের সঙ্গে যুক্ত। শুক্রবার রাতে ঘড়িবাড়ি এলাকার বাড়িতে হানা দিয়ে অভিযুক্ত ওই বিজেপি নেতা হাতেনাতে পাকড়াও করে গ্রেফতার। বাড়িতে তল্লাশি চালিয়ে একটি বন্দুক ও পাঁচ রাউন্ড গুলিও বাজেয়াপ্ত করেছেন তদন্তকারীরা।

আরও পড়ুন: অযোধ্যার রাম মন্দিরের প্রসাদ এল তারাপীঠে, মহা সমারোহে বিতরণ গেরুয়াবাহিনীর

এর আগেও বসিরহাটের বেআইনি অস্ত্র ব্যবসার হদিশ মিলেছিল। সেবার ময়লাখোলা এলাকা থেকে এক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করেছিল পুলিশ। সূত্রের খবর, তাঁকে জেরা করেই বিজেপি নেতা বাপিন দাসের নাম জানতে পারেন তদন্তকারীরা। এই চক্রের সঙ্গে আর কারা কারা জড়িত? ধৃত বিজেপি নেতা ও অস্ত্র ব্যবসায়ীরা জেরা করলেই তা জানা যাবে বলে মনে করছে পুলিশ।