ছোট, বড় শাসক দলের নানা মাপের নেতাদের বিরুদ্ধে কাটমানি ফেরত চেয়ে গত কয়েকদিন রাজ্যে কম বিক্ষোভ হয়নি। এমন কী, কাটমানি কাণ্ডে রাজ্যের কয়েকজন তাবড় মন্ত্রীরও নাম জড়িয়েছে। সবক্ষেত্রেই বিক্ষোভকারীদের সামাল দিতে নেতাদের ভরসা ছিল পুলিশ। এবার সেই পুলিশের বিরুদ্ধেই কাটমানির টাকা ফেরত চেয়ে বিক্ষোভ হল জলপাইগুড়িতে। তবে একা পুলিশ নয়, তার সঙ্গে পরিবহণ দফতরের কর্মী- অফিসারদের বিরুদ্ধেও কাটমানি নেওয়ার অভিযোগে সরব হলেন ট্রাক মালিকরা। 

আরও পড়ুন- বাড়ি বাড়ি গিয়ে কাটমানি ফেরালেন বাঁকুড়ার তৃণমূল নেতা, দেখুন ভিডিও

রাস্তার উপর দাঁড়িয়ে পণ্যবাহী যানবাহনের থেকে পুলিশ বা সরকারি কর্মীদের টাকা আদায় নতুন  কিছু নয় এ রাজ্যে। বেআইনিভাবে আদায় করা সেই টাকা ফেরত চেয়েই বুধবার জলপাইগুড়ির পাহাড়পুরে ৩১ ডি জাতীয় সড়ক অবরোধ করে পুলিশ এবং মোটর ভেহিকেলস দফতরের কর্মীদের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ দেখান ট্রাক মালিকেরা। অভিযোগ ওই এলাকা দিয়ে ট্রাক গেলেই প্রতিবার ১২৫ টাকা বা তার বেশি টাকা আদায় করা হচ্ছে। অভিযোগ, ট্রাকের বৈধ কাগজপত্র থাকলেও নানা অছিলায় ঘুষ নিচ্ছেন পুলিশ কর্মী এবং পরিবহণ দফতরের কর্মী, অফিসাররা। 

ট্রাক মালিকদের অভিযোগ, বিষয়টি নিয়ে বার বার প্রশাসনিক স্তরে দরবার করেও লাভ হয়নি। টাকা না দিলেই পুলিশ এবং মোটর ভেহিকেলসের কর্মীরা নানা অজুহাতে ট্রাকের বিরুদ্ধে কেস করছে অথবা পণ্য পরিবহণে বাধা দিচ্ছে। বেশ কিছুক্ষণ ধরে পাহাড়পুরে অবরোধ করার পরে তা তুলে নেওয়া হয়। আগামী ১৭ জুলাই রাজ্যের সমস্ত ট্রাক মালিক সংগনের প্রতিনিধিরা এই অভিযোগের সুরাহা চেয়ে রাজ্যপাল,মুখ্যমন্ত্রীর দ্বারস্থ হচ্ছেন বলে বিক্ষোভকারীরা দাবি করেছেন।