মৌলিককান্তি মণ্ডল, নদিয়া: স্বামী ও সন্তানের খোঁজ নেই, ফাঁকা বাড়ি থেকে উদ্ধার হল গৃহবধূর দেহ। ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে নদিয়ার নবদ্বীপে। মৃতদেহটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তে পাঠানো হয়েছে। তদন্তে নেমেছে পুলিশ।

আরও পড়ুন: বন্ধুদের ফোনে বাড়িতে থেকে বেরিয়ে মৃত্যু, পুকুরে মিলল কিশোরীর দেহ

মৃতার নাম অনিমা সাহা। নবদ্বীপ শহরের দেয়ারা পাড়া রোডে ভাড়াবাড়িতে স্বামী ও ৯ বছরের সন্তানকে নিয়ে থাকতেন তিনি। স্বামী পেশায় ভ্যানচালক। বাড়িওয়ালা উজ্বল দাসের দাবি, সকালে পরিবারে কারও কোনও সাড়া শব্দ পাওয়া যাচ্ছিল। কী ব্যাপার? তিনি যখন ভাড়াটিয়ার ঘরে যান, তখন দেখেন বিছানায় পড়ে রয়েছে অনিমার দেহ। মেঝেতে একটি নাইলনের দড়ি ছিল। ঘরের দরজাও ভেজানো ছিল। ঘটনা জানাজানি হতেই চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে এলাকায়। খবর দেওয়া হয় নবদ্বীপ থানায়। মৃতদেহটি উদ্ধার করে নবদ্বীপ স্টেট জেনারেল হাসপাতালে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠায় পুলিশ।

আরও পড়ুন: হুল উৎসবে সিধু-কানহু মূর্তিতে ভাঙচুর, প্রতিবাদে পথে নামলেন আদিবাসীরা

মৃতার স্বামী ও মেয়ে কোথায়? ঘটনার পর থেকে তাদের কোনও খোঁজ পাওয়া যাচ্ছে না। স্থানীয় বাসিন্দাদের দাবি, গৃহবধূ অনিমা সাহার মৃত্যুর স্বাভাবিক নয়। এর পিছনে কোনও রহস্য আছে। তদন্তে নেমেছে নবদ্বীপ থানার পুলিশ। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট এলেই, মৃত্যুর প্রকৃত কারণ স্পষ্ট হবে বলে জানিয়েছেন তদন্তকারী।