লকডাউনের মাঝেই এলাকায় পানীয় জলের সংকট। কলসি নিয়ে রাস্তায় বসে পড়লেন মহিলারা। বুধবার সকালে দীর্ঘক্ষণ বিক্ষোভ চলল দক্ষিণ ২৪ পরগণার বাসন্তী হাইওয়ে-তে। শেষপর্যন্ত পুলিশ গিয়ে বিক্ষোভকারীদের হটিয়ে দেয়। 

আরও পড়ুন: ত্রাণ বিলিতেও 'রাজনৈতিক ভেদাভেদ', জনতা-পুলিশ সংঘর্ষে রণক্ষেত্র বাদুড়িয়া

দক্ষিণ ২৪ পরগণার বাসন্তীর চোরা ডাকাতিয়া গ্রামে। গ্রামে টিউবওয়েলের সংখ্যা তিনটি। কিন্তু সেই টিউবওয়েল থেকে আর জল পড়ে না! কেন? স্থানীয় বাসিন্দারা জানিয়েছেন, সপ্তাহ দুয়েক আগে নদীর জলে তোড়ে বাঁধ ভেঙে যায়। তখন টিউবওয়েলগুলি বিকল হয়ে যায়। লকডাউনে বাজার দুর্ভোগ আরও বেড়েছে গ্রামবাসীদের। তাঁদের দাবি, স্থানীয় পঞ্চায়েত সদস্যকে টিউবওয়েল সারিয়ে দেওয়ার কথা বলেছিলেন। তিনি বিডিও-র সঙ্গে যোগাযোগ করতে বলেন। বিডিও অফিসের তরফে অবশ্য় কল সারিয়ে দেওয়ার আশ্বাস দেওয়া হয়। কিন্তু একটি টিউবওয়েলও ঠিক হয়নি। পাশের গ্রাম থেকে যে জল আনতে যাবেন, সে উপায়ই নেই। সেখানকার বাসিন্দারা বাধা দিচ্ছেন বলে অভিযোগ। এভাবে আর কতদিন চলবে! শেষপর্যন্ত ধৈর্য্যের বাঁধ ভাঙল বাসন্তীর চোরা ডাকাতিয়া গ্রামের বাসিন্দাদের। 

আরও পড়ুন: লকডাউনে 'খাদ্যের সংকট', হরিরামপুরে বিডিও অফিসের সামনে বিক্ষোভ মহিলাদের

বুধবার সকালে কলসি নিয়ে বাসন্তী হাইওয়ে অবরোধ করেন বিক্ষোভ দেখান গ্রামের মহিলারা। তাঁদের প্রশ্ন, 'কল না সারিয়ে জল কোথায় পাব?' ঘটনার জেরে তুমুল উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে এলাকায়। লকডাউনের জেরে এখন বাসন্তী হাইওয়ে-তে টহল দিচ্ছে পুলিশ ও ব়্যাফ। পুলিশই শেষপর্যন্ত বিক্ষোভকারীদের সরিয়ে দেয়। কল কি সারানো হবে? বিডিও ও স্থানীয় পঞ্চায়েত সদস্যের প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি।