লকডাউনেই একাধিক স্মৃতি, যা সেলিব্রেশন করাই যেত কিন্তু পরিস্থিতির জন্যই তা থেকে বিরত থাকলেন দিতিপ্রিয়া রায় অর্থাৎ পর্দার রানি মা। রানি রাসমণি লকডাউনেই পাশ করলেন উচ্চমাধ্যমিক। পাশাপাশি এবার ১৮-র গণ্ডিও পার করলেন তিনি। সোমবার দিনভোর শুভেচ্ছা বার্তাতে ভরতে থাকে সোশ্যাল মিডিয়ার পাতা। এদিন কী পরিকল্পনা দিতিপ্রিয়ার! এক সাক্ষাৎকারে খোলসা করলেন রানি রাসমণি। 

আরও পড়ুনঃ 'আত্মহত্যা করলে দেহ এমন হয় না', বিস্ফোরক সুশান্তের মরদেহ বাহক অ্যাম্বুলেন্স চালক

সোমবার জন্মদিন হলেও শ্যুটিং থাকার জন্য সেটেই কাটাতে হচ্ছে সময়। তাই এদিন বাড়িতে তেমন কোনও সেলিব্রেশন নয়। শ্যুটং সেটে সকলকে ট্রিট দেওয়ার প্ল্যানই করে ফেললেন তিনি। আর বাড়িতে সেলিব্রেশন হবে মঙ্গলবার। কারণ এদিন তিনি ছুটিও নিয়েছেন ও বাংলা ক্যালেন্ডার অনুযায়ী এদিন তাঁর বাংলা তিথির জন্মদিন। তাই মা-বাবার সঙ্গে সেলিব্রেশনটা হবে এদিনই। লাঞ্চ ডিনারের পরিকল্পনাও রয়েছে তাঁর। 

 

শ্যুটিং সেটে যে রানিমা এতটাই পরিণত, সেই দিতিপ্রিয়াই সবে মাত্র পার করলেন ১৮র গণ্ডি। এরই মাঝে লকডাউনের পর তিনি সেরে ফেলেছেন ফোটোশ্যুটও। সেটে নিয়ম মেনেই কাজ চলছে। কয়েকদিন আগে স্থগিত রাখা হয় শ্যুটিং, তবে আবার বর্তমানে শুরু করা হয়েছে, সম্প্রতি এই ধারাবাহিক পেরিয়েছে ১০০০ পর্ব। একটানা টিআরপি ধরে রাখা এই ধারাবাহিকের প্রাণকেন্দ্র দিতিপ্রিয়া, যা অভিনয় জগতে তাঁর এক ভিন্ন পরিচিতি তৈরি করেছে।