খুলে গিয়েছে মদের দোকান। নিয়ম মেনে, সোশ্যাল ডিসটেন্সিংয়ের কথা মাথায় রেখেই বিক্রি করা হচ্ছে মদ। তবে বিক্রিতেও রয়েছে কড়া পদক্ষেপ। এক বারে দু'টি বোতলের বেশি কেনা যাবে না বলেই নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। তেমনটাই মেনে চলছে মদ বিক্রি। সোশ্যাল মিডিয়ার চারিদিকে মদ বিক্রি হওয়ার ভিডিও উপচে পড়ছে। 

আরও পড়ুনঃসব ঠিক হয়ে যাবে, 'আই ফর ইন্ডিয়া' তে গান গেয়ে সাহস জোগালেন শাহরুখ খান

সেখানেই একটি ছবি শেয়ার করে নিজের নিম্ন মানসিকতার পরিচয় দিলেন পরিচালক রাম গোপাল ভর্মা। যাঁকে 'সরকার', 'সত্য'র মত ছবির পরিচালক হিসেবে চেনে দর্শক তাঁকেই আজ মারাত্মক রকম অপমানিত হতে হল নিজের দোষে। ছবিতে প্রায় সাত-আটজন মহিলা দাঁড়িয়ে রয়েছেন মদের দোকানের সামনে। মহিলাদের মদ্যপান নিয়ে নারী-বিদ্বেষী মন্তব্য করে বসেন তিনি। 

রাম ক্যাপশনে লেখেন, "দেখুন কারা লাইনে দাঁড়িয়ে আছে। মহিলাদের মদ্যপদের থেকে বাঁচানোটা একটু বেশিই বাড়াবাড়ি হয়ে গেল।" যেখানে মহিলাদের সমান অধিকার নিয়ে লড়ে চলেছে গোটা বিশ্ব, সেখানে মহিলাদের পোশাক, মদ্যপান, ধুমপান নিয়ে আজও চলে চরিত্রের মাপকাঠি গঠান করা। মহিলাটি মদ্যপান করে মানেই খারাপ, ছোট পোশাক পরা মানেই ধর্ষণকে আহ্বান জানাচ্ছে। 

আরও পড়ুনঃ'অল্প সময় অনেক কিছু শিখেছি', ঋষি কাপুরকে শ্রদ্ধা জানিয়ে জামাইয়ের আবেগঘন পোস্ট

ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রির একজন সদস্য হয়ে প্রগ্রেসিভ চিন্তাভাবনা তো দূরের কথা, নিজের নিম্ন মানসিকতার পরিচয় দিলেন রাম গোপাল ভর্মা। তাঁকে ছেড়ে কথা বলেনি নেটিজেনরা। ট্যুইট ডিলিট করার দাবি জানিয়ে তাঁকে মহিলাদের আচার, আচরণ নির্বিশেষে সম্মান দিতে অনুরোধ জানিয়েছে। তাঁকে নারী-বিদ্বেষী বলে ধিক্কার জানিয়েছে অসংখ্য নেটবাসী। 

আরও পড়ুনঃসাবধান, করোনা আতঙ্কের মধ্যে এই কাজ করলেই হতে পারে জেল

আরও পড়ুনঃকী করে করোনার হাত থেকে রক্ষা করবেন আপনার বাড়ির বয়স্ক সদস্যদের, রইল তারই টিপস

আরও পড়ুনঃশরীরে কীভাবে থাবা বসায় করোনা, জানালেন বিশেষজ্ঞরা