গত ২৪ ঘণ্টায় এদিশে করোনা সংক্রমণের শইকার হয়েছে ১,০৩৫ জন। স্বাস্থ্য মন্ত্রকের দেওয়া তথ্যে এমনটাই জানান হয়েছে। এটাই এখনও পর্যন্ত একদিনে সবচেয়ে বেশি আক্রান্তের সংখ্যা ভারতে।  ফলে দেশে বর্তমানে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৭,৪৭৭। গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছে ৪০ জন করোনা রোগীর। ফলে ভারতে করোনায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ২৩৯। 

 

 

তবে দেশে ২১ দিনের লকডাউন না হলে করোনা সংক্রমণের হার ৪১ শতাংশ বৃদ্ধি পেত । দাবি করল স্বাস্থ্যমন্ত্রক। ১৫ এপ্রিলের মধ্যে সংখ্যাটা ৮ লক্ষ ছাড়িয়ে যেত বলে পরিসংখ্যান দিয়েছে স্বাস্থ্যমন্ত্রক। এই অবস্থায় মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর ভিডিও কনফারেন্সে বৈঠকে লকডাউনের মেয়াদ আরও ২ সপ্তাহ বাড়ানোর পক্ষেই রায় দিয়েছেন নরেন্দ্র মোদী।

 

 

এদিকে মহারাষ্ট্রে এবার করোনা সংক্রমণের শিকার হলেন আরও এক পুলিশ আধিকারিক। থআনে পুলিশ কমিশনারেটে কর্তব্যরত ছিলেন ওই আধিকারিক। শনিবারই তার করোনা পরীক্ষার রিপোর্ট পজিটিভ আসে। বর্তমানে নাসিকের এক হাসপাতালে তাঁর চিকিৎসা চলছে। পুলিশ সূত্রে জানা যাচ্ছে, সম্প্রতি নাসিকে নিজের বাড়ি থেকে ফেরার পরেই তিনি অসুস্থ হয়ে পড়েন। থানেতে কোনও করোনা আক্রান্ত রোগীর থেকেই তাঁর শরীরে সংক্রমণ ছড়িয়েছে বলে মনে করা হচ্ছে। এদিকে ২১ জন বিদেশি নাগরিক ও জামাত সদস্যকে গ্রেফতার করা মহারাষ্ট্রের মাব্রার এক পুলিশ আধিকারিকের করোনা রিপোর্টও পজিটিভ এসেছে। 

আরও ২ সপ্তাহের জন্য বাড়ছে লকডাউনের মেয়াদ, ইজ্ঞিত দিল মোদীর প্রশংসায় করা কেজরির ট্যুইট

সচেতনতার বার্তা দিতে এবার নিজেই মাস্ক পড়লেন মোদী, যোগ্য সঙ্গত দিলেন মমতাও

করোনাভাইরাসকে চ্যালেঞ্জ দিতে জাগছে ইবোলা, কঙ্গোতে নতুন করে ছড়াচ্ছে সংক্রমণ

মহারাষ্ট্রে করোনা পরিস্থিতি ক্রমেই খারাপের দিকে এগোচ্ছে। গত ২৪ ঘণ্টায় আরও ৯২ জনের শরীরে সংক্রমণ পাওয়া গিয়েছে। ফলে রাজ্যে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১,৬৬৬। মুম্বইয়ের ধারাভিতে এদিনও করোনা সংক্রমণে এক জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গিয়েছে। ৮০ বছরের ওই ব্যক্তির মৃত্যুর পর এলাকায় করোনা সংক্রমণে মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৪। 

 

 

এদিকে এশিয়ার বৃহত্তম বস্তি এলাকায় ৭ লক্ষ মানুষের করোনা পরীক্ষা করা হবে বলে আগেই জানিয়েছিল বৃহন্মুম্বই পুরসভা। শনিবার থেকেই সেই কাজ শুরু হয়েছে। এই কাজে বিএমসিকে সাহায্য করছেন ১৫০ জন চিকিৎসকের একটি দল।