আইসিসি বিশ্বকাপ ২০১৯-এ নাকি ম্যাচ গড়াপেটা হচ্ছে। পাকিস্তানের সেমিফাইনালে ওঠা আটকাতে ভারত নাকি ইচ্ছে করে ছেড়ে দেবে বাংলাদেশ ও শ্রীলঙ্কা - অর্থাৎ বিশ্বকাপ গ্রুপ পর্বের শেষ দুই ম্যাচ। এক পাক টিভি চ্যানেলে বসে এমনই আজগুবি অভিযোগ করলেন প্রাক্তন পাক ক্রিকেটার বসিত আলি।

ভারত-পাক দুই দেশের সম্পর্ক অন্য মাত্রা দেয় এই দুই দেশের মধ্যের ক্রিকেট ম্যাচকে। প্রাক্তন ক্রিকেটার থেকে দুই দেশের রাজনৈতিক নেতা, সাধারণ ক্রিকেট প্রেমী জনতা সবারই নজর থাকে সেই ম্যচের দিকে। চলতি বিশ্বকাপে সেই ম্যাচ হয়ে গিয়েছে ১০ দিন আগে। কিন্তু তার পরেও ভারত-পাকিস্তান ক্রিকেটিয় সম্পর্ক কে ঘিরে বাজার গরম করার চেষ্টায় বিরতি নেই।

আরও পড়ুন - বিরাট হলেন বাবর! '৯২-এর আশ্চর্য দৌড়েই থাকল পাকিস্তান

আরও পড়ুন - পাকিস্তানি ভক্তদের দাবি কোহলিকে দাও, কাশ্মীর ছেড়ে দেব! সত্যি না ভূয়ো

আরও পড়ুন - আশ্চর্য সমাপতন! এভাবে চললে এবারের বিশ্বকাপ জিতছে পাকিস্তান

১৯৯৩ থেকে ১৯৯৬ মাত্র ৩ বছর পাকিস্তান জাতীয় দলের হয়ে খেলেছিলেন এই বসিত আলি। জাতীয় দলের জার্সিতে খেলেছেন সাকুল্যে ১৯টি টেস্ট ও ৫০টি একদিনের ম্যাচ। ফলে তাঁকে পাকিস্তানের ক্রিকেট জনতাই কতটা মনে রেখেছে তাই গবেষণার বিষয়। এই অবস্থায় তাঁর এই উদ্ভট অভিযোগ শুধুই সস্তা জনপ্রিয়তা কুড়ানোর চেষ্টা। নিজেকে প্রাসঙ্গিক করে তোলার লক্ষ্যেই এই সব বাজার গরম করা ফাঁকা আওয়াজ দিচ্ছেন তিনি।  

এর আগে পাকিস্তান ও অন্যান্য দেশের ক্রিকেট সমর্থকদের একাংশ দাবি করেছিলেন ভারত নাকি ইংল্যান্ডে নিজেদের পছন্দের নকশা মতো পিচ বানিয়ে ম্য়াচের পর ম্যাচ জিতে চলেছে। সেই দাবি অবশ্য একেবারে নিজের খেলার দিনে যেভাবে প্রতিপক্ষের বেল উড়িয়ে দিতেন, সেইভাবেই উড়িয়ে দিয়েছিলেন আরেক প্রাক্তন পাক ক্রিকেটার শোয়েব আখতার। তিনি সরাসরি বলেছিলেন এইসব পাগলের প্রলাপ ছাড়া কিছুই না।