Asianet News Bangla

২০১৯ বিশ্বকাপ ফাইনাল,সুপার ওভারের আগে সিগারেট ব্রেক নিয়েছিলেন বেন স্টোকস

  • ২০১৯ বিশ্বকাপ ফাইনালে দুরন্ত খেলেছিলেন বেন স্টোকস
  • নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৮৪ রানের অনবদ্য ইনিংস খেলেছিলেন তিনি
  • সুপার ওভারেও ৩ বলে ৮ রান করেন ইংল্যান্ডের তারকা অলরাউন্ডার
  • সেই বিশ্বকাপ ফাইনালে সামনে এল বেন স্টোকস সম্পর্কে এক অজানা তথ্য
     
Ben Stokes took a cigarette break to calm his nerves ahead of World Cup 2019 final super over bsp
Author
Kolkata, First Published Jul 14, 2020, 5:28 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

নির্ধারিত ৫০ ওভারের খেলা টাই। সুপার ওভারে অমীমাংসীত ম্যাচ। ম্যাচে বেশি বাউন্ডারি মারার সৌজন্যে ২০১৯ সালে প্রথম বিশ্বকাপ জিতেছিল ইংল্যান্ড। আজ ব্রিটিশদের প্রথম বিশ্ব জয়ের এক বছর। সকাল থেকেই শুভেচ্ছার জোয়ারে ভাসছেন ব্রিটিশ তারকারা। সেই ম্য়াচে ৮৪ রানের অনবদ্য ইনিংস খেলেছিলেন ইংল্যান্ড অল রাউন্ডার বেন স্টোকস। সুপার ওভারেও ৩ বলে করেছিলেন গুরুত্বপূর্ণ ৮ রান। বিশ্বজয়ের বর্ষপূর্তিতে সেই বেন স্টোকসকে নিয়ে নতুন এক অজানা কথা জানা গেল। ফাইনালে নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে সেয়ানে সেয়ানে লড়াইয়ে নাকি স্নায়ুর চাপ ধরে রাখতে সিগারেট ব্রেক নিয়েছিলেন স্টোকস।

আরও পড়ুনঃবিশ্বকাপের ইতিহাসে সেরা ফাইনাল,ব্রিটিশদের বিশ্বজয়ের বর্ষপূর্তি

নির্ধারিত ৫০ ওভারের খেলায় প্রায় আড়াই ঘণ্টা প্রবল চাপ নিয়ে ব্য়াটিং করেছিলেন স্টোকস। তারপরও ম্যাচ টাই। আসেনি বহু প্রতীক্ষিত জয়। সুপার ওভারে ফের ব্যাট করতে নামতে হবে স্টোকসকেই। কিন্তু তার জন্য কাজটা সহজ ছিলো না মোটেও। এত কঠিন চাপের মধ্যেও নিজেকে সামলে রাখার জন্য স্টোকস দ্বারস্থ হয়েছিলেন সিগারেটের।  চাপ সামাল দেয়ার জন্য ড্রেসিংরুমের পেছনে নিরিবিলি এক জায়গায় গিয়ে ধরান সিগারেট। পরে শান্ত হয়ে ফিরে এসে নামেন সুপার ওভারে ব্যাটিং করতে। এই তথ্য জানা গেল ইংল্যান্ডের বিশ্বকাপ জয়ের অজানা গল্প নিয়ে লেখক নিক হল্ট এবং স্টিভ জেমসের লেখা বই  ‘মরগ্যানস ম্যান : দ্য ইনসাইড স্টোরি অব ইংল্যান্ড রাইজ ফ্রম ক্রিকেট ওয়ার্ল্ড কাপ হিউমিলেশন টু গ্লোরি’ থেকে।

আরও পড়ুনঃকেন বিপক্ষকে টসের জন্য অপেক্ষা করাতেন সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়,কারণ জানালেন ইরফান পাঠান

আরও পড়ুনঃ'সৌরভ শক্তিশালী দল তুলে দিয়েছিল ধোনিকে কিন্তু বিরাটকে তা দিতে পারেনি ধোনি',গম্ভীরের মন্তব্যে বিতর্ক

সেই ঘটনার উল্লেখ করা বইতে লেখা হয়েছে,'২৭ হাজার দর্শকের পরিপূর্ণ গ্যালারি, মাঠ থেকে শুরু করে ড্রেসিংরুমের সিঁড়ি হয়ে লংরুম পর্যন্ত টিভি ক্যামেরার উপস্থিতি; এত সবের মাঝে একটু নীরব জায়গা বের করা বেশ কঠিন কাজই ছিলো। তবে বেন স্টোকস লর্ডসে অনেক খেলেছে। তাই সে প্রতিটি কোণা কোণা চেনে। ইয়ন মরগ্যান যখন ড্রেসিংরুমে সবাইকে নিয়ে আলোচনা করছিল, তখন স্টোকস বের হয়ে যায় ক্ষণিকের জন্য। অকল্পনীয় টেনশন ও চাপ নিয়ে ২ ঘণ্টা ২৭ মিনিট ব্যাটিং করে ফিরেছিল স্টোকস। পুরো শরীর ঘাম এবং ধূলায় ঢাকা ছিল। তখন স্টোকস সরে গিয়ে কী করেছিল? সে ইংল্যান্ডের ড্রেসিংরুমের পেছন দিকে, অ্যাটেন্ডেন্টের ছোট অফিসের পাশ দিয়ে, শাওয়ার রুমের কাছে চলে যায়। সেখানে সে একটি সিগারেট জ্বালিয়ে নিজের মতো করে কয়েক মিনিট সময় কাটায়।' তারপরই ব্যাট হাতে সুপার ওভারেও নিজের দাপট দেখান স্টোকস। একইসঙ্গে ইংল্যান্ড তথা ক্রিকেট বিশ্বকাপের ইতিহাসে নিজদের নাম খোদাই করে নেন বেন স্টোকস। ২০১৯ ক্রিকেট বিশ্বকাপ ফাইনালের ম্যান অব দ্য ম্যাচ।
 

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios