ইন্দোরে দ্বিতীয় দিনের শেষে প্রথম ইনিংসে বাংলাদের থেকে ৩৪৩ রানে এগিয়ে ছিল ভারত। দ্বিতীয় দিনের খেলা শেষ হওয়ার পর, হোলকর স্টেডিয়ামের লাইট জ্বালিয়ে ভারতীয় দল গোলাপী বল নিয়ে অনুশীলনে নেমে পরে। টিম ইন্ডিয়ার সেই অনুশীলনের ছবি দেখে অনেকেই বুঝে গিয়েছিলেন ভারতীয় দলের মানসিকতা। বাংলাদেশের পক্ষ আর ম্যাচে ফেরা সম্ভব নয়। তাই আর সময় নষ্ট করতে চায়নি দল। তৃতীয় দিনের শুরুতে সেই ছবিটা আরও পরিস্কার হয়ে গেল যখন, ভারত আর ব্যাটিং করতে নামল না। ৪৯৩ রানেই প্রথম ইনিংস ছেড়ে দিল কোহলির দল।  

আরও পড়ুন - দ্বিতীয় দিনের খেলা শেষ হতেই শুরু গোলাপী বলে অনুশীলন, ব্যাট হাতে নামলেন ধোনিও

৩৪৩ রানে পিছুয়ে থেকে মাঠে নামে বাংলাদেশ। কিন্তু লড়াই করার মত রসদ তাদের হাতে কোথায়। পরপর উইকেট হারেত শুরু করে তারা। আবার ভারতীয় পেস বোলিং টাইগারদের ব্যাটিংয়ের ওপর চেপে বসে। উমেশ ও ইশান্ত দুই ওপেনারকে পরপর ফিরিয়ে দিলেন। তারপর ওপার বাংলার শিবিরকে শিবিরে ধাক্কা দিলেন এপার বাংলার স্পিড স্টার মহম্মদ সামি। লাঞ্চ ব্রেকে যাওয়ার আগেই চার উইকেট হারিয়ে ফেলেছে টাইগাররা। শেষ লড়াইটা করছেন মুসফিকুর ও মহমদুল্লা। কিন্তু কতক্ষণ?  ক্রিকেট বিশেষজ্ঞদের মতে তৃতীয় দিনেই শেষ হবে খেলা। ফোকাস এবার ইডেনের দিকে। 

আরও পড়ুন - শেষ হল আইপিএল- এর দলবদল, এরপর ডিসেম্বরে আসছে 'নিলাম কলকাতা'

বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশির শুরু হওয়ার পর থেকে এখনও পর্যন্ত পাঁচটি টেস্ট খেলেছে ভারত। পাঁচটিতেই জয় পেয়েছে তারা। ইন্দোরে ছয় নম্বর টেস্ট জয়ের পথে কোহলির দল। টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের তালিকায় এখন ভারতের কাছে আছে ২৪০ পয়েন্ট। বাংলাদেশকে হারিয়ে আরও ৬০ পয়েন্ট আসবে টিম ইন্ডিয়ার দখলে। ৩০০ পয়েন্ট নিয়ে তালিকায় সবার রাজত্ব করবে কোহলির দল। বাকিরা যে অনেক অনেক দুরে। 

আরও পড়ুন - আর্জেন্টাইন তারকা মেসির গোলে হার ব্রাজিলের, হাড্ডাহাড্ডি ম্যাচে ৪১টি ফাউল