কিছুদিন আগেই পাকিস্তানের একটি সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশ হয়েছিল শোয়েব আখতারের একটি ইন্টিরাভিউ। পাকিস্তানের হয়ে খেলার সময় তাঁকে লড়াই করতে হত ২১ জনের বিরুদ্ধে। ১১ জন প্রতিপক্ষ দলের আর ১০ জন নিজের দলের। শোয়েব বলেছিলেন দলের মধ্যে কে কে ম্যাচ ফিক্সিংয়ের সঙ্গে জড়িত আছে সেটা বুঝে ওঠা সম্ভব ছিল না। এবার শোয়েবের সুরে সুর মেলালেন আরেক পাকিস্তান ক্রিকেটার মহম্মদ হাফিজ। শোয়েব আখতারার ইউটিউ চ্যানেলে অতিথি হয়ে এসেছিলেন হাফিস। আর সেখানেই তিনি এই বিস্ফোরণ ঘটালেন। 

আরও পড়ুন - শান্ত ছেলের ব্যাটে দাপট, স্বপ্নের ফর্মে মগ্ন মায়াঙ্ক

ইন্টারভিউয়ের একটি অংশ শোয়েব পাকিস্তান দলের অন্দর মহলের কিছু কথা তুলে ধরেন। আর সেখানেই হাফিজ বলেন, ইচ্ছে না থাকা সত্ত্বেও এমেন অনেক ক্রিকেটারের সঙ্গে তাঁকে খেলতে হয়েছে যারা বেটিং বা অন্য যে কোনও ধরনের খারাপ কাজের সঙ্গে যুক্ত। তিনি প্রতিবাদ করার চেষ্টা করেছেন, কিন্তু তাঁর কথা কেউ শোনেনি। এমনকি বলা হয়েছে ওরা খেলবে তোমার ইচ্ছে না থাকলে বাইরে থাকতে পারও। পাকিস্তান ক্রিকেটের কথা মাথায় রেখে অনিচ্ছা সত্ত্বেও মাঠে নেমে ভাল পারফর্ম করার চেষ্টা করেছেন।

আরও পড়ুন - প্রতিপক্ষের জন্য দুশ্চিন্তা হচ্ছে বিরাটের, এরপর বুমরা এলে কী হবে

 

 

পাক ক্রিকেটে হাফিজ পরিচিত প্রফেসর নামে। একই সঙ্গে স্বচ্ছ ভাবমূর্তি তাঁর। তাই মহম্মদ হাফিজ যখন শোয়েবের পাশে দাঁড়িয়ে এই দেশের ক্রিকেটের এই অন্ধকার দিকের কথা তুলে ধরেছেন সেটা যেমন অনেকের কাছে প্রশংসা কুড়িয়েছে, তেমনই অনেকেই ক্ষুব্ধ হয়েছেন। বর্তমানে পাকিস্তান দল অস্ট্রেলিয়া সফরে। একঝাঁক তরুণ ক্রিকেটার আছে সেই দলে। হাফিজ-শোয়েবদের আশা এই তরুণ ক্রিকেটারদের গায়ে যেন কোনও ভাবেই কলঙ্কের দাগ না লাগে। 

আরও পড়ুন - ২২ গজে বিস্ফোরণ সামির, ভারতীয় পেসারে মুগ্ধ ক্রিকেট বিশ্ব