৮ জুন থেকে লা লিগার শুরুর কথা ঘোষণা করেছেন স্পেনের প্রধানমন্ত্রী পেদ্রো স্যাঞ্জেজ। ইতিমধ্যেই দলগতভাবে অনুশীলনও শুরু করে দিয়েছে বার্সা, রিয়াল, অ্যাটলেটিকো সহ লা লিগার অন্য ক্লাবগুলি। কিন্তু দিন যতই দিন এগোচ্ছে স্পেনে ফুটবল ফেরার, ততই দুরত্ব বাড়ছে বার্সেলোনা কোচ কিকে সেতিয়েন ও বার্সা সুপারস্টার লিওনেল মেসির। দুজনের সম্পর্ক এমন পর্যায়ে পৌছেছে যে সরাসরি না হলেও, সংবাদ মাধ্যমে একে অপরের বিরুদ্ধে মুখ খুলতেই দুবার ভাবছেন না। দেলর প্রধান প্লেয়ার ও কোচের সম্পর্কের এহেন অবনতিতে বেশ অস্বস্তিতে বার্সা শিবির। কারণ শুধু লা লিগাই নয়, সামনে রয়েছে উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগের একাধিক গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচ।

আরও পড়ুনঃ'ভয়ঙ্কর সুন্দর মুহূর্ত',মৃত্যুকে উপেক্ষা করেই সঙ্গমে মত্ত যুগল,কিন্তু কেন এই কেরামতি

সেতিয়েন ও মেসির সম্পর্কের অবনতির সূত্রপাত এলএমটেনের এক বক্তব্যকে কেন্দ্র করে। সম্প্রতি এক সংবাদ মাধ্যমে মেস বলেন, খেলার ধরন না বদলালে বার্সেলোনা চ্যাম্পিয়ন্স লিগ জিততে পারবে না। প্রসঙ্গত গত মার্চ মাসে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের প্রি-কোয়ার্টার ফাইনালে প্রথম পর্বের ম্যাচে নাপোলির বিরুদ্ধে ইটালিতে ড্র করেছিল বার্সা।  তারপরই বিশ্ব জুড়ে নিজের মারণ প্রভাব বিস্তার করে করোনা ভাইরাস। বন্ধ হয়ে যায় সমস্ত ধরনের ফুটবল টুর্নামেন্ট। তারপরই বার্সার নতুন কোচের ধরণ ও ফুটবল দর্শন নিয়ে প্রশ্ন তোলেন লিও মেসি। জানিয়ে দেন, সেতিয়েনের তত্ত্বাবধানে বার্সেলোনা বর্তমানে যে ধরনের ফুটবল খেলছে তাতে তাতে চ্যাম্পিয়নস লিগ জেতা সম্ভব নয়। এছাড়াও মেসি জানিয়েছিলেন, দলের দক্ষতা নিয়ে তার কোনও সন্দেহ নেই। কিন্তু সেতিয়েনের প্রশিক্ষণে বার্সার খেলার ধরন নিয়ে তিনি সন্তুষ্ট নন। সেতিয়েন তার পাল্টা জবাব দিতে স্পেনীয় প্রচারমাধ্যমে বলেছেন, ‍‘‍‘মেসির কথায় বিতর্কের সূত্রপাত হয়েছে। চ্যাম্পিয়ন্স লিগ আমরা জিততে পারি। এই বিশ্বাস আমাদের রয়েছে। তবে আমাদের খেলায় আরও উন্নতি দরকার। কিন্তু খেতাব জয়ের জন্য দলের ক্ষমতা নিয়ে কোনও প্রশ্ন উঠতে পারে না।’’

আরও পড়ুনঃ২৫ তম বিবাহ বার্ষিকীতে স্ত্রী অঞ্জলিকে সারপ্রাইজ সচিনের, প্রমাণ করলেন বৈবাহিক জীবনেও তিনি মাস্টার ব্লাস্টার

আরও পড়ুনঃবিরাটের বিরুদ্ধে খেললে মাঠে শত্রু আর বাইরে তারা খুব ভালো বন্ধু হতেন , মনে করেন শোয়েব আখতার

সোতিয়েনের বক্তব্যের ফের পালটা দিয়েছেন এলএমটেন। লিও বলেছেন,'দলের প্রশিক্ষক আমার বক্তব্যের ভুল ব্যাখ্যা করেছেন। আমি শুধু এটুকুই বলেছিলাম চ্যাম্পিয়নস লিগের শেষ ম্যাচ আমরা যে ছন্দে খেলেছিলাম, তা ট্রফি জয়ের উপযুক্ত নয়। দল নিয়ে আমার কোনও সন্দেহই নেই।'এছাড়াও মেসি বলেছেন,শ্রদ্ধেয় ব্যক্তিদের ব্যক্তিগত মতামত থাকতেই পারে। আমি ভাগ্যবান, প্রত্যেক বছর চ্যাম্পিয়ন্স লিগে খেলি। সেই সুবাদেই এটা বলতে পারি, যে ভাবে শেষ কয়েকটি ম্যাচে খেলেছি, তাতে খেতাব জেতা সম্ভব হবে না। একে অপরের প্রতি বক্তব্য পালটা বক্তব্যে ফুটবল বিশেষজ্ঞদের ধারণা মেসি ও বার্সা কোচের সম্পর্ক বেশ তিক্ত হয়ে উঠেছে দ্রুত সমস্যার সমাধান না হলে তা প্রভাব ফেলতে পারে মরসুমের আগামী ম্যাচগুলিতেও। একে করোনা আবহে শুরু হচ্ছে লিগ, প্লেয়ার,কোচ ও সাপোর্টিং স্টাফদের সুরক্ষার বিষয়টি খতিয়ে দেখতেই হিমসিম খাচ্ছেন বার্সা কর্তারা। তারউপর কোচ ও মেসির দ্বন্দ্বের সমাধান করা এখন নয়া চ্যালেঞ্জ হয়ে দাঁড়িয়েছে বার্সা কর্তাদের কাছে।