দেশ তথা রাজ্যে ক্রমশ বাড়ছে করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা। বাড়ছে মৃত্যুর সংখ্যাও। তবুও পঞ্চম দফার লকডাউন অনেক শিথিল করেছে কেন্দ্রী সরকার। রাজ্য সরকারও লকডাউনের কঠোরতা অনেক কমিয়েছে। করোনা বাইরাস ও লকডাউনের ফলে রাজ্যে এখনও বন্ধ সমস্ত ধরনের খেলা। এতদিন বন্ধ ছিল ময়দানের বেশির ভাগ বড় ক্লাবের দরজাও। তবে এবার  প্রায় তিন মাস পর সদস্য-সমর্থকদের জন্য খুলতে চলেছে মোহনবাগানের গেট।  ক্লাবের তরফ থেকে ট্যুইট করে ক্লাব তাবু খোলার বার্তা দিয়েছে সবুজগমেরুণ কর্তৃপক্ষ। ফের ক্লাব খোলার খবরে খুশি মোহনবাগান সমর্থকরা।

আরও পড়ুনঃগতির দুনিয়ায় ঝড় তোলা ছেড়ে নামী পর্ণ স্টার,জানুন রেনে গার্সির কাহিনি

মোহনবাগানের পক্ষ থেকে ট্যুইটারে যে সমর্থকদের উদ্দেশ্যে যে বার্তা দেওয়া হয়েছে তাতে লেখা হয়েছে,'লকডাউন পরর্বতী সময়ে মোহনবাগান অ্যাথলেটিক ক্লাব টেন্ট আগামী ১৫ জুন সদস্য ও সমর্থকদের জন্য পুনরায় খুলে যাবে। ক্লাব খোলার পরের দিন অর্থাৎ ১৬ জুন থেকে  তাঁবুতেই পাওয়া যাবে চ্যাম্পিয়ন মোহনবাগানের মার্চেনডাইস। অর্থাৎ তাঁবু থেকেই ইচ্ছে মতো চ্যাম্পিয়নশিপ প্রোডাক্ট কিনে নিতে পারবেন বাগানপ্রেমীরা।' খেলা কবে শুরু হবে তা নিয়ে কোনও বার্তা না থাকলেও প্রিয় ক্লাবের টেন্ট খুলে যাওয়ার স্বস্তি বাগান সমর্থকদের মধ্যে। অনেক সমর্থক বলছেন, খেলা না হোক, প্রিয় ক্লাবে গিয়ে সময় তো কাটানো যাবে। এই লকডাউনের বাজারে তাও কম কী।

 

 

আরও পড়ুনঃপ্রথম ম্যাচ থেকেই খেলবেন মেসি,জানিয়ে দিলেন বার্সা কোচ

আরও পড়ুনঃলা লিগায় নয়া চমক,ঘরে বসে দর্শকদের জন্য থাকছে ভার্চুয়াল স্ট্যান্ড

চলতি মরসুমে মোহনবাগান শুধু মোহনবাগান নয়, তারা এটিকে সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ হয়েছে। গত ১ জুন থেকে এটিকের সঙ্গে জুটি বেঁধে নতুন ক্লাব হিসেবে আত্মপ্রকাশ করেছে সবুজ  মেরুণ। লকডাউনের জন্য বোর্ড মিটিং অনুষ্ঠিত না হওয়ায় নতুন ক্লাবের নাম, লোগো ও জার্সি এখনও নির্ধারিত হয়নি। অপরদিকে,করোনা রুখতে লকডাউনের জেরে আই লিগ ট্রফি এখনও হাতে তোলা হয়নি ফুটবলারদের। বাকি রয়ে গিয়েছে সেলিব্রেশনও। তবে তা কীভাবে সম্ভব হবে তা নিয়ে রয়েছে। এই সবকিছুই এটিকে ও মোহনবাগান কর্তারা যেদিন বোর্ড মিডিংয়ে বসবেন সেদিনই ঠিক হবে। আপাতত শুধু সমর্থকদের জন্য খুলছে তাদের প্রিয় ক্লাবের দরজা।