খোঁড়াতে খোঁড়াতে হলেও পুনরায় সিঁরি আ জয়ের দিকে এগিয়ে চলেছে জুভেন্তাস। তাদের টানা নবম সিঁরি জয়ের পথটি এবারে ভরা ছিল হাজার রকমের বিপদ ও সমস্যায়। সেই বিপদ এবং সমস্যা যে জুভে কাটিয়ে উঠতে পেরেছে তা নয়। বরং জুভে ধন্যবাদ জানাতে পারে ইন্টার মিলান, লাৎজিও, আটালান্টা-র মতো ক্লাবগুলিকে যারা দুর্দান্ত পারফরম্যান্স করেও বার বার মোক্ষম সময় ভুল করে জুভের কাজ সহজ করে দিয়েছে। জুভেন্তাস-কে এই মরশুমে বরং দেখিয়েছে অনেক নড়বড়ে। রোনাল্ডো, দিবালা কিংবা ডি-লিটের মতো কয়েকজন হাতে গোনা খেলোয়াড়-কে বাদ দিলে প্রত্যেকে ভুগছে ধারাবাহিকতার অভাবে। 

আরও পড়ুনঃপাক বর্ডারের সামনে দাঁড়িয়ে সটান বুকে ভারতীয় সেনার ভাংড়া,ভিডিও শেয়ার করলেন বীরেন্দ্র সেওয়াগ

এর আগে অনেকবার জুভেন্তাস লিগে অন্য দল ভালো খেলা-সত্ত্বেও ভাগ্যের জোরে ম্যাচ জিতে বেরিয়ে গিয়েছে। কিন্তু কাল উদীনেসের বিরুদ্ধে সেই চিত্রনাট্যতে বদল ঘটলো। প্রথমার্ধে রোজকার মতো বিরক্তিকর ফুটবল খেলছিল জুভে। ১১ জনকেই নিজেদের অর্ধে রেখে জুভের কাজটা আরও কঠিন করে তুলেছিল উদীনেসে। কিন্তু প্রথমার্ধের শেষ দিকে ৪২ মিনিটে ২৫ গজ দূর থেকে নেওয়া ডি-লিটের দুর্দান্ত শটে ১-০ গোলে এগিয়ে যায় জুভে। কিন্তু দ্বিতীয়ার্ধে আলেক্স সান্দ্রোর ভুলে ১০ মিনিটের মধ্যে সমতা ফেরায় উদীনেসে। এরপর বাকি ম্যাচে একই চিত্র। পরিকল্পনা হীন ফুটবল খেলে গোলের চেষ্টা জুভের এবং উদীনেসের মরিয়া লড়াই। ম্যাচের অন্তিম লগ্নে একটি লং বল ধরে আলেক্স সান্দ্রো-কে মাটি ধরিয়ে ডি-লিট কে ফাঁকি দিয়ে গোল করে যায় উদীনেসের মিডফিল্ডার সেকো ফাফোনা। জুভের ডিফেন্সের কঙ্কালসার চেহারা টা আরও একবার সবার সামনে আসে। শেষ ৫ ম্যাচে ১২ গোল হজম করেছে তারা। 

আরও পড়ুনঃহঠাৎ দেখা ২০০৮-এর আনকোরা বিরাটের সঙ্গে ২০২০-র 'কিং কোহলির'

আরও পড়ুনঃঘরে বসে কমেন্ট্রি, করোনা আবহে হতে পারে আইপিএলের বড়সড় চমক

৩৫ বছরের রোনাল্ডো মাঝমাঠে এসে বল সামলে প্রতি ম্যাচে গোল করে যাবেন এমনটা কেউ ভাবেন না। গতকাল একটি দুর্দান্ত শট এবং দিবালার জন্য একটি গোলের সুযোগ তৈরি করা বাদে তিনি ছিলেন পুরোপুরি নিষ্প্রভ। উদীনেসে পার্ক দ্য বাস স্ট্রাটেজি-তে ডিফেন্সে পায়ের জঙ্গল তৈরি করে দিবালার বিপজ্জনক ড্রিবলিংকে সামাল দিয়েছে। এরপরে ডিফেন্সে একা ডি-লিট ভালো খেললেও বাকিদের অপদার্থতায় রোজ ভুগতে হচ্ছে জুভেকে। এর পরেও হয়তো কোনরকমভাবে টেনে হিঁচড়ে সিঁরি আ হয়তো জিতবে জুভে কিংবা জিততে না পারলেও তাতে আশ্চর্য হওয়ার কিছু নেই। কিন্তু পারফরম্যান্সে অভূতপূর্ব কিছু উন্নতি না পরের মাসে চ্যাম্পিয়ন্স লিগে শেষ ষোলো থেকেই যে বিদায় নেবে জুভে সেই দেওয়াল লিখন এখন থেকেই মেনে নেওয়া উচিত জুভে ভক্তদের। 

.