Asianet News BanglaAsianet News Bangla

Terrorist Killed: অরুণাচলে অসম রাইফেলসের কঠোর অভিযান, নিহত তিন জঙ্গি

সেনা সূত্রের খবর সোমবার সকাল সাড়ে ৮টা থেকে অসম রাইফেলসের একটি দল দক্ষিণ অরুণাচল প্রদেশের লংডিং এলাকায় অভিযান শুরু করে। 

Army operation in Arunachal Pradesh 3 terrorist killed bsm
Author
Kolkata, First Published Nov 15, 2021, 8:22 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

ভারতীয় সেনা উত্তর-পূর্ব ভারতে (North East) বিদ্রোহ-বিরোধী অভিযান আরও জোরদার করেছে। সেনা সূত্রের খবর সোমবার সেনার অভিযানে তিনি সন্ত্রাসবাদীর মৃত্যু (3 Terrorist Killed) হয়েছে। মণিপুর-মায়ানমার সীমান্তের কাছে অসম রাইফেসের (Assam Rifles) কনভয়ে হামলা চালিয়েছিল দুটি জঙ্গি সংগঠন। সেই ঘটনায় সপরিবারে নিহত হয়েছিলেন অসম রাইফেলেসের কর্নেল বিপ্লভ ত্রিপাঠি। মৃত্যু হয়েছিল আরও চার সেনা জওয়ানের। 

সেনা সূত্রের খবর সোমবার সকাল সাড়ে ৮টা থেকে অসম রাইফেলসের একটি দল দক্ষিণ অরুণাচল প্রদেশের লংডিং এলাকায় অভিযান শুরু করে। এই অভিযানেই ন্যাশানাল সোশ্যালিস্ট কাউন্সিল অব নাগালিমের তিন জঙ্গি নিহত হয়েছে। লংডিংএর ডেপিটি কমিশনার বানি লোগো জানিয়েছেন অসম রাইফেলসের অভিযানে তিন জঙ্গি নিহত হয়েছে। কিন্তু এখনও এই বিষয়ে কোনও মন্তব্য করেনি অসম রাইফেলস। 

Congress: হিন্দুত্ব বিতর্কের জের, তাই কি আগুন কংগ্রেস নেতা সলমন খুরশিদের বাড়িতে

Mahatma Gandhi: ভারতের উপহার দেওয়া গান্ধী মূর্তি ভাঙচুর, দুঃখ প্রকাশ অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রীর

শনিবার সকালে জঙ্গি হামলায় প্রাণ হারিয়েছেন অসম রাইফেলসের খুগা ব্যাটালিয়নের কমান্ডিং কর্নেল বিল্পব ত্রিপাঠি তাঁর সহকর্মী রাইফেলম্যান এনকে নায়েক, সুমন স্বর্গিয়ারি, আরপি মীনা ও শ্যামল দাস। হামলায় মারা গিয়েছিলেন বিল্পব ত্রিপাঠির স্ত্রী ও তাঁদের মাত্র ৬ বছরের পুত্র সন্তানও। শনিবারই সকাল ১০টা হামলার ঘটনা ঘটে। জঙ্গিরা প্রথমে সিঙ্গেল লেন রাস্তায় একটি ইম্প্রোভাইজড এক্সপ্লোসিভ ডিভাইস বিস্ফোরণ ঘটায়। পরে কনভয়ের ওপর গুলি চালায়। বিপ্লব ত্রিপাঠি ও তাঁর কর্মীরা যখন ফরোয়ার্ড কোম্পানি বেস থেকে ব্যাটালিয়ন সদর দফতর থেকে ফিরছিলেন, সেই সময়ই এই হামলার ঘটনা ঘটে। 

Tripura Violence: ত্রিপুরায় সাংবাদিক, আইনজীবীদের বিরুদ্ধে UAPA ধারায় মামলা, শুনতে রাজি সুপ্রিম কোর্ট

সংবাদ সংস্থার পিটিআই জানিয়েছে শনিবার সন্ধ্য দুই জঙ্গি সংঘগঠন জারি করা যৌথ বিবৃতিতে বলেছে, 'আমরা আমাদের জনগণকে রক্ষা করার জন্য ও আমাদের জনগণের অধিকার দমন করার প্রচেষ্টার বিরুদ্ধে বিদ্রোহ করছি।' তবে সেনা কনভয়ে সেনা কর্তার ছেলে যে উপস্থিত থাকবে তা তারা জানতা বলেও জানিয়েছে। পাশাপাশি জঙ্গি সংগঠন বলেছে, তাদের অধিকার ও সার্বভৌমত্ব না পাওয়া পর্যন্ত তারা হাত গুটিয়ে বসে থাকবে না। 

মণিপুরের এই হামলার নিন্দা  করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। তিনি বলেছেন জওয়ানদের এই আত্মত্যাগ কখনই বিফলে যাবে না। অন্যদিকে সোশ্যাল মিডিয়ায় বার্তা দিয়ে কেন্দ্রীয় সরকারকে এত হাত নিয়ে রাহুল গান্ধী নিহত সেনা জওয়ান ও সেনা কর্তাদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়েছেন। মণিপুরের মুখ্যমন্ত্রী এই ঘটনার নিন্দা করে জানিয়েছেন দোষীদের শান্তি দেওয়া হবে। তাঁর দাবি হামলাকারীরা মায়ানমার থেকে এই দেশে এসে সেন কনভয় উড়িয়ে দেয়। আহত এক সেনা জওয়ানকে দেখতে তিনি হাসপাতালেও গিয়েছিলেন। 
 

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios