Asianet News BanglaAsianet News Bangla

শাহিনবাগ 'খালি করাক' শাহ, কেজরিওয়ালের মন্তব্য়ে বিপাকে বিজেপি

  • শাহিনবাগের আন্দোলনে সমস্যায় পড়ছে দিল্লিবাসী
  •  প্রতিবাদকারীদের হটাতে স্বরাষ্টমন্ত্রীকে আবেদন 
  • দিল্লির মুখ্য়মন্ত্রীর আবেদনে বিপাকে বিজেপি
  • শাহিনবাগের মতো স্পর্শকাতর ইস্য়ু নিয়ে চিন্তায় দল 
Arvind Kejriwal appeals Amit Shah to vacate Sahinbug CAA protesters
Author
Kolkata, First Published Feb 2, 2020, 3:18 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

শাহিনবাগের আন্দোলনে সমস্যায় পড়ছে দিল্লিবাসী। প্রতিবাদকারীদের সঙ্গে  কথা বলতে স্বরাষ্টমন্ত্রীর কাছে আবেদন জানালেন দিল্লির মুখ্য়মন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল। যদিও  কেজরিওয়ালের এই আবদনেই বিপাকে  পড়েছে বিজেপি। দিল্লি বিধানসভা নির্বাচনের আগে শাহিনবাগের মতো স্পর্শকাতর ইস্য়ুতে এগোতে চাইছে না তারা।

নীল বাতির গাড়ির নম্বর পাল্টে মাদক পাচার, গ্রেফতার ৩ 

এতদিন শাহিনবাগের আন্দোলনের পিছনে দিল্লির মুখ্য়মন্ত্রীর  হাত রয়েছে বলে দাবি করত বিজেপি। খোদ বিজেপির পোস্টার বয় যোগী  আদিত্য়নাথ বলেছেন, গুলির বদলে  শাহিনবাগের আন্দোলনকারীদের বিরিয়ানি খাওয়াচ্ছে কেজরিওয়ালের সরকার। যদিও সেই অভিযোগ অস্বীকার  করল আম আদমির সরকার। এক টেলিভিশন সাক্ষাৎকারে আপ-এর প্রধান অরবিন্দ কেজরিওয়াল বলেছেন, শাহিনবাগ  নিয়ে আপ সরকারের ওপর যে অভিযোগ আনা হচ্ছে, তা মিথ্য়ে। এমনকী শাহিনবাগে আন্দোলনকারীরা রাস্তা আটকে রাখা নিয়ে তাঁর কাছে অনেক অভিযোগ এসেছে। ওরকম একটা গুরুত্বপূর্ণ জায়গায় রাস্তা আটকে রাখায়, সমস্যায় পড়ছে দিল্লিবাসী।  কদিন  আগে যানজটের কারণে ওখানে একটি অ্য়াম্বুল্য়ান্সও আটকে পড়ে। সামনেই ছেলেমেয়েদের বোর্ডের পরীক্ষা। তার আগে প্রতিবাদকারীদের সঙ্গে কথাবলা উচিত স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের।

করোনা আতঙ্ক কলকাতায়, বেলেঘাটা আইডিতে ভর্তি মার্কিন নাগরিক

কেজরিওয়ালের এই সাদামাটা আবেদনই বিপাকে  ফেলেছে  বিজেপিকে। দিল্লি বিধানসভা নির্বাচনের আগে শাহিনবাগ  নিয়ে আগ্রাসী হতে চাইছে না বিজেপি। রাজ্ধানীর রাজনৈতিক মহলের ধারণা, সেই সুযোগকেই কাজে লাগাচ্ছেন কেজরিওয়াল। শাহিনবাগে সিএএ প্রতিবাদকারীদের হটাতে গেলে যে মুসলিম  ভোটে হাত পড়বে তা বিলক্ষণ জানে বিজেপি। তাই ভোট পর্যন্ত এ বিষয়ে নাড়া দিতে চাইছে না কেউ। 

কলকাতায় সচিন, পতাকা উড়িয়ে শুরু করলেন ম্যারাথন

অন্য়দিকে ,আপ শিবিরের বক্তব্য় রাজধানীর আইনশৃঙ্খলা যেহেতু কেন্দ্রীয় সরকারের বিষয় তাই এই নিয়ে হাত বাধা পার্টির। সেকারণ স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছ প্রতিবাদকারীদের সঙ্গে আলোচনা করার কথা বলেছেন তারা। এরমধ্য়ে কোনও রাজনীতি নেই। আপ সরকার কখনোই কোনও আন্দোলনকে সাহায্য় করছে না।

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios