রেলে চাকরির বিনিময়ে জমি কেলেঙ্কারি, চার্জশিটে লালু প্রসাদ ও তাঁর পরিবরের তিন সদস্যের নাম

| Oct 08 2022, 09:08 AM IST

রেলে চাকরির বিনিময়ে জমি কেলেঙ্কারি, চার্জশিটে লালু প্রসাদ ও তাঁর পরিবরের তিন সদস্যের নাম

সংক্ষিপ্ত


সেন্ট্রাল ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন বা সিবিআই আরজেডি নেতা লালু প্রসাদ যাদব, তাঁর স্ত্রী রাবড়ি দেবী, মেয়ে মিসা ভারতী-সহ ১৫ জনের বিরুদ্ধে চাকরির জন্য জমি কেলেঙ্কারি মামলায় চার্জশিট দাখিল করেছে। শুক্রবার রেলওয়ে সূত্রে এই খবর জানান হয়েছে।

সেন্ট্রাল ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন বা সিবিআই আরজেডি নেতা লালু প্রসাদ যাদব, তাঁর স্ত্রী রাবড়ি দেবী, মেয়ে মিসা ভারতী-সহ ১৫ জনের বিরুদ্ধে চাকরির জন্য জমি কেলেঙ্কারি মামলায় চার্জশিট দাখিল করেছে। শুক্রবার রেলওয়ে সূত্রে এই খবর জানান হয়েছে। 

রেলের প্রাক্তন জেনারেল ম্যানেজার সৌম্য রাঘবনের নামও সিবিআই তাদের চার্জশিটে রেখেছে। সেই চার্জশিট সিবিআই-এর বিশেষ আদালতে দাখিল করা হয়েছে। রাঘবন রেল বোর্ডের অর্থ কনিশনার হিসেবে কাজ করে অবসর নিয়েছে। 

Subscribe to get breaking news alerts

সিবিআই ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২১ এর  প্রাথমিক তদন্ত নথিভুক্ত করেছিল। রেলওয়ে কেলেঙ্কারি সম্পর্কিত। ১৮ মে সেই এফআইআর পেশ করা হয়। সেই চার্জশিটে বলা হয়েছে, অনেক ব্যক্তি তাঁর নামে বা নিকট আত্মীয়দের নাম জমি নিয়েছিল। পরিবর্তে রেলওয়েসে চাকরি দিয়েছিল। সেই জমি সার্কেল রেটের থেকে অনেক কম ও বাজারদরের চেয়ে অনেক কম দামে অধিগ্রহণ করা হয়েছিল। অভিযুক্তদের মধ্যে সাত জন প্রার্থীও রয়েছে। সিবিআই-এর অভিযোগ রাবড়ি দেবী, মিসা ভারতী ও হেমা যাদবের নামে জমি হস্তান্তর করা হয়েছিল। 

সিবিআই সূত্রে বলা হয়েছে আরও প্রার্থীরা মিথ্যা স্থানান্তর সংশাপত্র ব্যবহার করেছেন, রেল মন্ত্রকের কাছে মিথ্যা সার্টিফাইড নথি জমা দিয়েছিলেন। কেন্দ্রীয় সংস্থা দাবি করেছে শুধুমাত্র এই কেলেঙ্কারির জন্য পাটনায় প্রায় ১.০৫ বর্গফুট পরিমাণ জমি পেয়েছিল লালু প্রসাদ যাদবের পরিবার। সেই জমি দ্রুত বিক্রি করে নগদ অর্থ কুক্ষিগত করেছিল। 

জুলাই মাসে এই কেলেঙ্কারির সঙ্গে ভোলা যাদবকে দিল্লি থেকে গ্রেফতার করে সিবিআই। ভোলা যাদব পরিবারের ঘনিষ্ট হিসেবে পরিচিত। সিবিআই চারটি এলাকায় তল্লাশিও চালিয়েছে। পাটনায় দুটি আর দারভাঙ্গায় একটি। যে এলাকাগুলি যাদবদের অধীনে রয়েছে। পাশাপাশি যাদবদের পৈত্রিক বাড়িতেও তল্লাশি চালিয়ে বেশ কিছু  নথি উদ্ধার করেছে। যেগুলি অপরাধের সঙ্গে। 

ইউপিএ আমলে লালু যাদব রেলমন্ত্রীর দায়িত্বে ছিলেন। সেই সময়ই এই কেলেঙ্কারি হয়। এই কেলেঙ্কারিতে লালু প্রসাদ যাদবের ভূমিকা ছিল বলে আগেই অভিযোগ করেছিল সিবিআই আধিকারিকরা। 
এই ঘটনায় বিরোধীদের অভিযোগ নীতিশ কুমার বিজেপির সঙ্গে ছেড়ে লালু প্রসাদ যাদবদের সঙ্গে নুতন করে গাঁটছড়া বেধেছেন। সেই কারণেই আবার নতুন করে লালু প্রসাদ ও তাঁর পরিবারকে হেনস্থা করা হচ্ছে। যদিও এই অভিযোগ মানতে নারাজ বিজেপি। 

মালবাজার নিয়ে বিজেপি-তৃণমূলের রাজনৈতিক তরজা, সবমিলিয়ে উদ্ধার ৪৫০

দ্রুত ভারতের বাজারে আসছে E-rupee ডিজিটাল মুদ্রা, জানুন এর অন্যতম বৈশিষ্ট্যগুলি

পুজো কার্নিভালে নিরাপত্তা, শনিবার একদিনের জন্য আন্দোলনে বিরতি SSC চাকরি প্রার্থীদের

Read more Articles on
null