আবারও রাজনীতির ময়দান উত্তপ্ত হচ্ছে সুপ্রিম কোর্টের প্রাক্তন প্রধানবিচারপতি রঞ্জন গগৈকে নিয়ে। আগামী বছরই অসম বিধানসভা নির্বাচন। আর সেই নির্বাচনে নাকি প্রাক্তন বিচারপতি রঞ্জন গগৈ হবেন বিজেপির মুখ্যমন্ত্রীর পদপ্রার্থী। তেমনই দাবি করছেন অসম কংগ্রেসের নেতা তরুণ গগৈ। 

তরুণ গগৈ দাবি করেছেন প্রাক্তন বিচারপতি যদি রাজ্যসভায় যেতে আপত্তি না করেন তাহলে তিনি মুখ্যমন্ত্রী হতে আপত্তি করবেন কেন? তিনি আরও বলেন বিজেপির প্রার্থী তালিকায় রঞ্জন গগৈএর নাম রয়েছে। তরুণ গগৈ জানিয়েছেন রঞ্জন গগৈ অসমের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী কেশবচন্দ্র পুত্র সহজেই মানবাধিকার বা অন্যান্য সংস্থার চেয়ারম্যান হতে পারতেন। কিন্তু রাজনৈতিক উচ্চাকাঙ্খা রয়েছে বলেই তিনি রাজ্যসভায় গেছেন। পাশাপাশি তাঁর অভিযোগ রাম জন্মভূমি বাবরি মসজিদ মামলার তাঁর নেতৃত্বাধীন বেঞ্চেই নিষ্পত্তি হয়েছে। আর তাতে রীতিমত সন্তুষ্ট বিজেপি।

কিন্তু সম্পূর্ণ অন্য কথা বলছেন রঞ্জন গগৈ। তিনি স্পষ্ট করে জানিয়ে দিয়েছেন তিনি রাজনীতিবিদ নন। তাই তাঁর সেরকম কোনও উচ্চাকাঙ্কা নেই।  অসমের মুখ্যমন্ত্রী পদপ্রার্থী হিসেবে তাঁকে নিয়ে যে জল্পনা রয়েছে তাও উড়িয়ে দিয়েছেন তিনি। তাঁর রাজ্যসভায় যাওয়াও রাজনৈতিক কোনও পদক্ষেপ নয় বলেও জানিয়েছেন তিনি। তিনি আরও বলেন এটি খুবই দুর্ভাগ্যজনক যে সাধারণ মানুষরা রাজ্যসভায় মনোনীত প্রার্থী আর রাজনৈতিক প্রার্থীদের মধ্যে পার্থক্য করতে পারেন না। অসম বিজেপির পক্ষ থেকেই ওই অভিযোগ উড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। 

শিবের বাড়ি কৈলাসেও নজর চিনাদের, এয়ার মিসাইল বসানোয় প্রশ্ন উঠছে হিন্দুদের তীর্থ নিয়ে ...

জঙ্গি বা প্রতিপক্ষ পাকিস্তান নয়, বিদ্যুতের বিল দেখেই মাথায় হাত কাশ্মীরের নিরাপত্তা রক্ষীদের ...

রাম মন্দির বাবরি মসজিদ রায় ঘোষণার পর থেকেই বিজেপির সঙ্গে প্রাক্তন বিচারপতি রঞ্জন গগৈ- এর সখ্যতা নিয়ে রাজনৈতিক মহল একাধিক প্রশ্ন তুলেছে। সেই বিতর্ককে আরও বাড়িয়েছে তাঁর রাজ্যসভায় যাওয়া। 

'হাউডি মোদী' থেকে 'নমস্তে ট্রাম্প', মার্কিন রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে মিশে গেল টেক্সাস থেকে গুজরাত