ট্রাফিক আইন ভঙ্গ করলে শাস্তি অবধারিত- একথা সকলেরই জানা। কিন্তু ট্রাফিক আইন ভঙ্গের যে কি মারাত্মক খেসারত দিতে হতে পারে তা হয়তো ভেবেও দেখেননি এই ট্রাক চালক। ট্রাকে প্রয়োজনের তুলনায় অতিরিক্ত পণ্য বোঝাই করার জন্য এক ট্রাক চালককে এক লক্ষ একত্রিশ হাজার টাকা জরিমানা ধার্য করা হয়েছে এবং ওই ট্রাক মালিককে অন্যান্য ট্রাফিক আইন ভঙ্গের কারণে ৬৯,৫০০ টাকা জরিমানা বাবদ দাবি করা হয়েছে। এই বিপুল অঙ্কের টাকাই জরিমানা বাবদ প্রদান করা হয়েছে বলে জানা গিয়েছে সংবাদ সংস্থার সূত্রে। 

প্রসঙ্গত চলতি মাসের ১ সেপ্টেম্বর তারিখ থেকে ট্রাফিক আইন নিয়ে যে কড়াকড়ি শুরু হয়েছে তার পর থেকে এযাবৎ জরিমানার অঙ্কের রেকর্ড করেছে এই টাকার অঙ্ক। হরিয়ানার রেজিস্টার করা এই ট্রাকটিকে ডিটি কারনাল রোডে বুধবার জরিমানা করা হয় বলে খবর। প্রসঙ্গত এর দিন কয়েক আগে রাজস্থানের এক ট্রাক চালকের কাছ থেকে এক লক্ষ একচল্লিশ হাজার টাকা জরিমানা করার খবর প্রকাশ্যে এসেছিল। ওড়িশার এক ট্রাক চালকের কাছ থেকে ৮০,০০০ টাকা জরিমানা করার খবর প্রকাশ্যে এসেছিল। 

এ তো ট্রেলার ছিল, সিনেমা এখনও বাকি আছে', সরকারের ১০০ দিনে মোদী উবাচ

রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্ক সংযুক্তিকরণের প্রতিবাদের জের, পুজোর মুখেই ধর্মঘটের ডাক

উৎসবের মেজাজে বিষাদের সুর, গণেশ বিসর্জনে নৌকোডুবিতে মৃত ১১

এই দুই রাজ্যে দিয়ে চলবে দেশের প্রথম বুলেট ট্রেন, জানেন কি মাথাপিছু ভাড়া কত

প্রসঙ্গত, বিরাট অঙ্কের জরিমানা ধার্যের কারণে অনেক রাজ্যের তরফে এই নয়া ট্রাফিক আইন লাগু করা হলেও, রাজ্য়ের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায় কেন্দ্রের এই আইনের বিরোধীতা করে এসেছেন। নয়া এই আইন প্রণয়নের জেরে সারা দেশে একটা হট্টগোলের পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে। পাশাপাশি মধ্যপ্রদেশ, কেরল এবং দিল্লিতেও এই নয়া ট্রাফিক আইন প্রণয়ণে রাজি নয়। এমনকি বিজেপি পরিচালিত রাজ্যগুলি যেমন, গুজরাত,মহারাষ্ট্রর, গোয়া এবং কর্ণাটকেও এই জরিমানা প্রণয়ন করা হবে না বলে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে।