আরও দুদিন সিবিআই হেফাজতে থাকতে হবে আইএনএক্স মিডিয়া মামলায় অন্যতম অভিযুক্ত দেশের প্রাক্তন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী পি চিদম্বরম-কে। এদিন সুপ্রিম কোর্টের তরফে সাফ জানিয়ে দেওয়া হয়েছে যে, বৃহস্পতিবার পর্যন্ত সিবিআই হেফাজতেই থাকতে হবে পি চিদম্বরম-কে। 

প্রসঙ্গত, সোমবার সুপ্রিম কোর্ট তাঁর সিবিআই হেফাজতের মেয়াদ একদিন বাড়িয়ে দিয়েছে। এর আগে চিদম্বরমের আইনজীবী কপিল সিব্বল জানান যে, তাঁকে প্রয়োজনে গৃহবন্দি করে রাখা হোক, কিন্তু তিহাল জেলে যেন না পাঠানো হয়। তাঁর বয়স ৭৪ বছর, বয়সজনিত কারণে চিদম্বরমকে নিরাপত্তা দেওয়া উচিত বলেও দাবি করা হয়। যদিও সেইসময়ে শীর্ষ আদালতের তরফে দাবি করা হয় গৃহবন্দি কেবল রাজনৈতিক ব্যক্তিদেরই বন্দি করে রাখা যেতে পারে। 

প্রসঙ্গত, এজেন্সি আদালতকে জানায় যে, বর্ষীয়ান কংগ্রেস নেতার ১৫ দিনের হেফাজতের মেয়াদ ৫ সেপ্টেম্বর শেষ হচ্ছে। আর তারপরই আজ সেই মেয়াদ বাড়ানোর বিষয়টি প্রকাশ্যে এল। কারণ এজেন্সির তরফে শিকার করে নেওয়া হয় যে, সোমবার তাদের তরফে একটি ভুল তথ্য প্রদান করা হয়েছে। 

গৃহবন্দি করে রাখা হোক, তিহার জেলে নয়, সুপ্রিম কোর্টের কাছে আর্জি চিদম্বরমের

আইএনএক্স মিডিয়া মামলায়ে সিবিআই হেফাজতে চিদম্বরম, গ্রেফতারিতে খুশি ইন্দ্রাণী মুখোপাধ্যায়

জামিনের মামলা তালিকাভুক্তই নয়, সুপ্রিম কোর্টে বড় ধাক্কার মুখে চিদম্বরম

এদিন বিচারপতি আর ভানুমতী এবং বিচারপতি এএস বোপান্নার-এর বেঞ্চ-এর তরফে পি চিদম্বরমকে বিশেষ আদালতে জামিনের আবেদন করার জন্য বলা হয়। অন্যদিকে তদন্তকারী সংস্থার তরফে বলা হয়, তাঁকে কোনওরকম বিশেষ সুরক্ষা প্রদান করা অনুচিত এবং তাঁর জামিন নিয়ে সিদ্ধান্ত নেবে নিম্ন আদালত। 

প্রসঙ্গত, প্রাক্তন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রীর বিরুদ্ধে অভিযোগ, ২০০৭ সালে অর্থমন্ত্রী থাকাকালীন বিদেশ থেকে বিপুল অঙ্কের টাকা আইএনএক্স মিডিয়াকে পাইয়ে দেওয়ার ছাড়পত্র দিয়েছিলেন তিনি। এর বিনিময়য়ে তাঁর ছেলে কার্তি চিদম্বর কে মোটা টাকা ঘুষও দিয়েছিল আইএনএক্স মিডিয়ায়। জেরার মুখে প্রাক্তন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রীর নাম বলেছিলেন বিজনেস টাইকুন ইন্দ্রাণী মুখোপাধ্যায়। পাশাপাশি চিদম্বরমের গ্রেফতারিতে কার্যত খুশি হয়েছিলেন ইন্দ্রাণী মুখোপাধ্যায়।