নেট দুনিয়ায় ছিছিক্কার পড়ে গিয়েছে। টোল প্লাজায় অন্যান্য সবার মতো রাজনৈতিক নেত্রীর গাড়িও আটকে টোল চেয়েছিলেন এক কর্মী। নেত্রী টাকা তো দিলেনই না উল্টে গাড়ির সামনে থাকা ব্যারিকেড ধাক্কা মেরে সরিয়ে দিলেন। আর টোল চাওয়া সেই কর্মীকে মারলেন সপাটে এক চড়। ক্ষমতার নক্কারজনক অপব্যবহারের এই ছবি ধরা পড়েছে অন্ধ্রপ্রদেশের গুন্টুরে। অভিযুক্ত রাজনৈতিক নেত্রীর নাম ডি রেবতী। তিনি রাজ্যের ক্ষমতাসীন দল ওয়াইএসআর কংগ্রেস পার্টির নেত্রী এবং ভাদেরা কর্পোরেশনের চেয়ারপার্সন।

বৃহস্পতিবার এই ঘটনার ভিডিও প্রকাশ করেছে সংবাদ সংস্থা এএনআই। তরা জানিয়েছে ঘটনাটি ঘটেছে গুন্টুর জেলার কাজা টোল প্লাজায়।  সেই ভিডিও-তে দেখা যাচ্ছে, ব্যারিকেডের সামনে দাঁড়িয়ে নেত্রীর হুটার বাজানো কালো এসইউভি গাড়ি। গাড়ি থেকে নেমে রেবতী নিজেই সেই ব্যারিকেড সরাতে শুরু করেন। কর্মীরা বাধা দিতেই আঙুল উঁচিয়ে আক্রমণাত্মক ভঙ্গিতে তাঁকে ওই কর্মীদের দিকে এগিয়ে যেতে দেখা যায়। কর্মীরা তারপরও বাধা দিতে একেবারে ধাক্কা মেরে ব্যারিকেড রাস্তায় ফেলে দেন, তারপর এক টোল প্লাজা কর্মীর দিকে এদিয়ে গিয়ে মারেন সজোরে থাপ্পর। তারপরও অবশ্য ওই কর্মী গুটিয়ে যাননি। কিন্তু অন্যান্যরা সেই ব্যারিকেড রাস্তার পাশে সরিয়ে নিয়ে যান।

এই ভিডিও প্রকাশ হতেই প্রবল সমালোচনার মুখে পড়েছেন ওয়াইএসআর কংগ্রেস পার্টির নেত্রী রেবতী। রাজ্যের তরুণ উদ্য়োগপতি নাগা শ্রবন কিলারু ভিডিওটি পোস্ট করে লিখেছেন, নেতানেত্রীদের ক্ষমতা অপব্যবহার করতে দেখাটা অত্যন্ত দুঃখজনক ও বিরক্তিকর। অন্ধ্রপ্রদেশ সরকার তাঁর বিরুদ্ধে ব্য।বস্থা নেবে কিনা সেই প্রশ্ন ছুঁড়ে দিয়েছেন তিনি।

আরও পড়ুন - ফাইজারের ভ্যাকসিনে 'অ্যানাফিল্যাক্সিস' সমস্যা, টিকারণ শুরুর পরই ব্রিটেনে জারি সতর্কতা

আরও পড়ুন স্বামীকে পণবন্দি করে ধর্ষণ করল ১৭ জন পুরুষ, ভয়াবহ নির্যাতনের শিকার ৫ সন্তানের মা

আরও পড়ুন - অফিসের মধ্যেই কেএমসি-র ডাইরেক্টরকে চুমু ডেপুটির, তারপরই ঘোষণা 'আমি করোনা আক্রান্ত'

নেটিজেনদের কেউ কেউ জানিয়েছেন, ওই টোল প্লাজায় মাত্র ৩৫ টাকা টোল দিতে হয়। তারজন্য এইরকম ব্যবহার কেউ করাটা একেবারেই ক্ষমতার দম্ভ প্রকাশ বলে জানিয়ছেন তাঁরা। কেউ কেউ বলেছেন, এই দম্ভই কিন্তু কাল হয়ে দাঁড়ায়। রাজনৈতিক দল ও নেতানেত্রীদের চ্যালেঞ্জ করার জন্য নতুন আইন প্রণয়ন করা দরকার বলেও জানিয়েছেন কেউ কেউ।