সোমবার পশ্চিম মেদিনীপুর থেকে মুখ্যমন্ত্রীর জঙ্গলমহল সফরকে কটাক্ষ করেছিলেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি দিলীপ ঘোষ। এবার তাঁর নিশানায় তৃণমূল নেতা ছত্রধর মাহাতো। ঝাড়গ্রামের ছেলে ছত্রধরকে মুখ্যমন্ত্রী বোকা বানিয়েছেন বলে দাবি করলেন দিলীপ। শুধু তাই নয়, ছত্রধরের জেলযাত্রা নিয়েও মমতাকে নিশানা করলেন তিনি।

আরও পড়ুন-শুভেন্দুর সঙ্গে একমঞ্চে থাকার 'খেসারত',এবার দলীয় কোপে পড়লেন পুরুলিয়ার সভাধিপতি

সোমবার পশ্চিম মেদিনীপুরের জগদ্ধাত্রী পুজোর উদ্বোধনে গিয়েছিলেন দিলীপ ঘোষ। সেখান থেকে তিনি যান ঝাড়গ্রাম জেলার গোপীবল্লভপুরে। সেখানে জগদ্ধাত্রী পুজোর উদ্বোধনে গিয়ে দিলীপ ঘোষ ছত্রধর প্রসঙ্গে নিশানা করেন মুখ্যমন্ত্রীকে। তিনি বলেন, আমাদের ঝাড়গ্রামের ছেলে ছত্রধর মাহাতো। মুখ্যমন্ত্রী তাঁর মোটর সাইকেলে ভোটে জেতার পর তাঁকে জেলে ঢুকিয়ে দিলেন। আট বছর ধরে জেলের ভাত খেয়েছেন ছত্রধর। আদিবাসী ও মাহাতোদের বোকা বানাচ্ছেন ছত্রধর। তাঁকে বোকা বানিয়ে নতুন করে পদ দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। তাঁকে বোকা বানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। শুধু তাই নয়, তাঁর স্ত্রীকেও চাকরি দিয়েছেন। 

আরও পড়ুন-চলতি মাসে লাগাতার 'হুমকি পোস্টার' পুরুলিয়ায়, ভোটের আগে ফের সক্রিয় মাওবাদীরা

পাশাপাশি, ছত্রধর সম্পর্কে তিনি আরও বলেন, এখন ভোট আসছে বলে ছত্রধরকে জেল থেকে বের কারনো হয়েছে। বাংলার মানুষ এসব মেনে নেবে না। গোপীবল্লভপুর দুই ব্লকের বাহারুনাতে একটি কর্মসূচিতে যোগ দিয়েছিলেন দিলীপ ঘোষ। সেখানে তৃণমূল থেকে বিজেপিতে যোগদান করেন কমপক্ষে একশো জন কর্মী। সেখান থেকেই স্বভাবসিদ্ধ ভঙ্গিতে রাজ্য সরকারের বিরুদ্ধে তোপ দাগেন দিলীপ। কেন্দ্রীয় প্রকল্প রাজ্য সরকার গ্রহণ না করাই তীব্র কটাক্ষ করেন দিলীপ। একইসঙ্গে, গ্রামের রাস্তা ঘাটের বেহাল অবস্থা নিয়েও উদ্বেগ প্রকাশ করেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি।