শিয়রে একুশের বিধানসভা নির্বাচন। বাংলার রাজনৈতিক দলগুলি ইতিমধ্যেই তাঁদের প্রচার শুরু করে দিয়েছে। একদিকে, প্রচারে ঝড় তুলে টানা জেলা সফর করছেন তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্য়ায়। অন্যদিকে, শাসকদলের শক্তি হারাতে কোমর বেঁধে নেমেছে বিজেপি সহ সব বিরোধী দল। এই অবস্থায় কীভাবে নির্বাচন প্রক্রিয়া সম্পন্ন করা যায়। তা নিয়ে তাঁদের চূড়ান্ত তৎপরতা আগেই শুরু করে দিয়েছে নির্বাচন কমিশন। কোভিড পরিস্থিতিতে কীভাবে নির্বাচন সম্ভব? সেদিকেই নজর দিচ্ছেন কমিশনের কর্তারা।

আরও পড়ুন-নাড্ডার কনভয়ে হামলায় কেন্দ্র-রাজ্য তিক্ততা, কেন্দ্রীয় ক্যাডারে যোগদানের প্রশ্নে নীরব ৩ আইপিএস

বাংলায় ভোটের আবহে বুধবার রাজ্যে আসছেন ডেপুটি নির্বাচন কমিশনার সুদীপ জৈন। তাঁর সফর ঘিরে প্রস্তুতিও শুরু করে দিয়েছে মুখ্য নির্বাচনী আধিকারিকের দফতর। রাজ্যের আইন-শৃঙ্খলার পরিস্থিতি কী? তার বিস্তারিত রিপোর্ট জানতে ইতিমধ্যেই সমস্ত জেলার জেলাশাসকদের নির্দেশ দিয়েছে কমিশন। কোভিড পরিস্থিতি কীভাবে ভোট প্রক্রিয়া সম্ভব? নির্বাচন সুষ্ঠুভাবে পরিচালনা করতে কী কী প্রয়োজন? রাজ্যের স্পর্শকাতর ও অতিস্পর্শকাতর বুথের সংখ্যা কোন কোন জোলায় অধিকতর? এই সব বিষয়ে সমস্ত রিপোর্ট আগে থেকেই তৈরি রাখছেন রাজ্য নির্বাচনের কর্তারা।

আরও পড়ুন-ঘাড়ের উপর নিঃশ্বাস ফেলছে বিজেপি, আজ জলপাইগুড়ি থেকে কী বার্তা মমতার

ডেপুটি নির্বাচন কমিশনারের সফর ঘিরে জোর তৎপরতা কমিশনের দফতরে। এদিন রাতেই কলকাতায় আসার কথা রয়েছে ডেপুটি নির্বাচন কমিশনারের। তাঁর সঙ্গে থাকতে পারেন জাতীয় নির্বাচন কমিশনারের প্রতিনিধিরাও। এছাড়াও, প্রশাসনিক ও রাজনৈতিক স্তরেও একাধিক বৈঠক করতে পারেন উপ নির্বাচন কমিশনার। সুদীপ জৈনের দুই জিনের রাজ্য সফরে কোন কোন বিষয়ে উপর আলোকপাত করা হবে? তা নিয়ে ইতিমধ্যেই আলোচনা শুরু করে দিয়েছে মুখ্য নির্বাচনী আধিকারিকের দফতর। এরপরই, কমিশনের ফুল বেঞ্চ রাজ্যে আসার সম্ভাবনা।