Asianet News Bangla

কলকাতায় যাদুঘরের জন্য় বাড়তি বরাদ্দ, তামিলনাড়ুতেও প্রত্নতাত্ত্বিক সংগ্রহশালা

  • শনিবার সকাল বেলায় শুরু গিয়েছে ২০২০ সালের বাজেট পেশ 
  • বাজেট পেশ শুরু করেছেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ 
  • কলকাতায় ভারতীয় যাদুঘরের জন্য় বাড়তি বরাদ্দ করা হয়েছে  
  • এছাড়া, তামিলনাড়ুতে গড়ে তোলা হবে প্রত্নতাত্ত্বিক সংগ্রহশালা 
Allotted extra amount for Indian Museum Kolkata on budget 2020
Author
Kolkata, First Published Feb 1, 2020, 1:46 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

আজ শনিবার সকাল বেলায় শুরু গিয়েছে ২০২০ সালের বাজেট পেশ। ইতিমধ্য়েই দ্বিতীয়বারের জন্যে বাজেট পেশ শুরু করেছেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ। আর সেখানে ঘোষণা করলেন, কলকাতায় ভারতীয় যাদুঘরের উন্নয়ন করা হবে। সেজন্য় বরাদ্দ হয়েছে বিপুল পরিমানে অর্থ। 

আরও পড়ুন, বাজেটে সোনার গয়নায় আমদানি শুল্ক কমার সম্ভাবনা, লাভের আশায় শহরের ব্য়বসায়ীরা

কলকাতা শহরের অন্যতম দুই গর্ব কলকাতা মিউজিয়াম ও কলকাতা মিন্টের সংস্কারের কথা ঘোষণা করলেন অর্থমন্ত্রী ৷ নির্মলা সীতারমনের ঘোষণা, দেশের চারটি মিউজিয়ামের সংস্কারের জন্য বিশেষ বরাদ্দ করা হয়েছে ৷ সেই তালিকায় রয়েছে কলকাতার ভারতীয় মিউজিয়ামও ৷ ইন্ডিয়ান মিউজিয়ামেরও সংস্কার করা হবে ৷ এর ফলে কলকাতার ভারতীয় যাদুঘরে আসতে পারে নতুন চমক ৷ সংস্কারের তালিকায় রয়েছে কলকাতা মিন্টও ৷তবে শুধু কলকাতাতেই নয়, দেশ জুড়েই সেই পরিকল্পনার কথা মাথায় রেখে বাড়তি বরাদ্দ-র কথা ঘোষণা করলেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ। তিনি জানিয়েছেন, তামিলনাড়ুতে গড়ে তোলা হবে প্রত্নতাত্ত্বিক সংগ্রহশালা। 
 

আরও পড়ুন, বাজেটের দিনেও ব্যাঙ্ক ধর্মঘট, চরম ভোগান্তির আশঙ্কা গ্রাহকদের


 কলকাতা  যাদুঘর বিশ্বের অন্যতম প্রাচীন যাদুঘর। এটির  উৎস এশিয়াটিক সোসাইটি অফ বেঙ্গল, যেখানে সংগ্রহগুলি প্রথম ১৮১৪ সালে অধিগ্রহণ করা শুরু হয়েছিল। তিন তলা জুড়ে ছড়িয়ে থাকা, যাদুঘরে প্রত্নতাত্ত্বিক, শিল্প, নৃতাত্ত্বিক, ভূতাত্ত্বিক, শিল্প ও প্রাণীবিদ্যা বিভাগ রয়েছে। ড্যানিশ উদ্ভিদবিজ্ঞানী নাথানিয়েল ওয়ালিচ যাদুঘরের প্রতিষ্ঠাতা-কিউরেটর হিসাবে কৃতিত্ব পেয়েছিলেন। ব্রাহ্মসমাজের মতো প্রাথমিক আধুনিকতাবাদী আন্দোলনের উত্থান এবং অগ্রণী শিক্ষাকেন্দ্র স্থাপনের সাথে এর স্থাপনার ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক রয়েছে। ১৮৭৫ সালে এই সংগ্রহশালাটি সম্পূর্ণরূপে প্রকাশ ও প্রদর্শনীর জন্য উন্মুক্ত করা হয়েছিল।  গ্রানভিল ডিজাইন করেছিলেন, যিনি কলকাতার জিপিও এবং হাইকোর্টেরও পরিকল্পনা করেছিলেন। আগামীদিনে সবমিলিয়ে সেই ইতিহাসকেই শান দিতেই কলকাতায় যাদুঘরের জন্য় বাড়তি বরাদ্দ করল কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ।

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios