ভোট যুদ্ধের দোরগড়ায় বিনামূল্যের কো-ভ্যাক্সিন দেওয়া নিয়ে মালব্যর খোঁচা মমতাকে। প্রথম পর্যায়ের করোনা যোদ্ধা এবং পরে রাজ্যবাসীকে বিনামূল্য়ে করোনা ভ্য়াকসিন দেওয়া হবে বলে চিঠিতে উল্লেখ করেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্য়োপাধ্যায়। এরপরেই কেন্দ্রীয় সরকার ভ্যাকসিন দিলেও মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্য়োপাধ্য়ায় মিথ্যা ঘোষণা করে চলেছেন, টুইট খোঁচা দিয়েছেন বাংলা বিজেপির সহকারী পর্যবেক্ষক অমিত মালব্যর।

আরও পড়ুন, হোমের কিশোরীকে সেফটিপিন ফুটিয়ে অত্যাচার, মিথ্যাচারের অভিযোগে মমতাকে তোপ অগ্নিমিত্রার
 
প্রসঙ্গত,  রাজ্য়ের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেছেন, ' দেশে কোভিড ভ্যাক্সিন আসতে চলছে।'  এরপর তিনি বলেন,'পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য সরকারের রাজ্যের সমস্ত বাসিন্দাদের কাছে সম্পূর্ণ বিনামূল্যে ভ্যাকসিন পৌঁছে দেওয়ার ব্যবস্থা করছে। পশ্চিমবঙ্গের পুলিশ, হোমগার্ড, অসামরিক প্রতিরক্ষা স্বেচ্ছাসেবক, সোংশোধনার ও বিপর্যয় মোকাবিলা দফতরের কর্মীদের কাছে এই ভ্যাকসিন পৌঁছে দেওয়া হবে। অগ্রাধিকার ভিত্তিতেই ভ্যাকসিন পৌঁছে দেওয়া হবে বলেও জানিয়েছেন তিনি। একই সঙ্গে রাজ্যের সকল মানুষের সুস্থতাও কামনা করেছেন তিনি।

আরও পড়ুন, শুধু 'চাল চুরি' নয়, 'মোদীর দেওয়া প্রকল্পের নামও চুরি করেন মুখ্যমন্ত্রী', মমতাকে তোপ নাড্ডার

মুখ্যমন্ত্রীর এই কথার পরিপ্রেক্ষিতেই আক্রমণ করেছেন  বাংলা বিজেপির সহকারী পর্যবেক্ষক অমিত মালব্য। অমিত মালব্য টুইটে লেখেন, মুখ্যমন্ত্রী ভুল দাবি করে চলেছেন যে রাজ্য সরকার প্রথম সারির কোভিড যোদ্ধাদের বিনামূল্য করোনার টিকাকরণের বন্দোবস্ত করছেন। তৃণমূল কর্মী-সমর্থকরা বিভিন্ন প্রান্তে পোস্টার টাঙাচ্ছেন। তাতে লেখা রয়েছে, রাজ্যবাসীর জন্য বিনামূল্য়ে টিকাকরণের বন্দোবস্ত করেছেন দিদি। নির্লজ্জতার কোনও সীমা নেই।'