Asianet News BanglaAsianet News Bangla

হিসেব বহির্ভূত সম্পত্তি মামলায় CIDর অভিযান, IPS ও তাঁর ঘনিষ্টের বাড়িতে তল্লাশি

হিসেববহির্ভূত সম্পত্তি মামলায় তৎপর সিবাইডি। এবার হানা দিন সল্টলেকের ব্যবসায়ী সুদীপ্ত রায়চৌধুরীর বাড়িতে। একই সঙ্গে হানা দেয়  আইপিএস আধিকারিক দেবাশিস ধরের বাড়িতে। তাঁদের অফিসেও তল্লাশি চালায় সিআইডি। আইপিএস দেবাশিস  ধরের ঘনিষ্ট হিসেবে পরিচিত ব্যবসায়ী সুদীপ্ত রায়চৌধুরী।

CID raids ipa officer and businessman's house in Salt Lake in case of unaccounted
Author
First Published Sep 11, 2022, 4:05 PM IST

হিসেববহির্ভূত সম্পত্তি মামলায় তৎপর সিবাইডি। এবার হানা দিন সল্টলেকের ব্যবসায়ী সুদীপ্ত রায়চৌধুরীর বাড়িতে। একই সঙ্গে হানা দেয়  আইপিএস আধিকারিক দেবাশিস ধরের বাড়িতে। তাঁদের অফিসেও তল্লাশি চালায় সিআইডি। আইপিএস দেবাশিস  ধরের ঘনিষ্ট হিসেবে পরিচিত ব্যবসায়ী সুদীপ্ত রায়চৌধুরী। 

দেবাশিস ধর ছিলেন কোচবিহারের পুলিশ সুপার। শীলতখুচিতে গুলি চালানোর পর তাঁরে কম্পলসারি ওয়েটিং-এ পাঠান হয়। সিআইডি সূত্রের খবর, কলকাতা ও সল্টলেকের একাধিক জায়গায় তল্লিশি চলছে। হিসেব বহির্ভূত সম্পত্তি মামলাটি দায়ের করা হয়েছিল ব্যারাকপুর পুলিশ কমিশনারেটে। পরে সেই মামলার তদন্তের ভার নেয় সিআইডি। 


সুদীপ্রত রায়চৌধুরীর আইনজীবী শুভজিৎ সাহা জানিয়েছেন, ব্যারাকপুর কমিশনারেট তাঁর মক্কেলের বরুদ্ধে কোনও মামলায় তল্লাশি চালাতে এসেছিল। তল্লাশি শেষে বাড়ির কেয়ারটেকারের হাতে একটি সিজারলিস্টের প্রতিলিপি দিয়ে চলে যায় তদন্তকারীরা। তবে তাঁর মক্কেলের বাড়ি থেকে তেমন কিছু পাওয়া যায়নি বলেও দাবি করেন তিনি। 

অন্যদিকে দেবাশিস ধরের বাড়িতেও তল্লাশি চলছে বলে সূত্রের খবর। সিআইডি সূত্রের খবর আয়ের সঙ্গে সঙ্গতি নেই আইপিএস দেবাশিস ধরের। ২০১৫ -২০১৮ সাল পর্যন্ত দেবাশিস ধরের সম্পত্তি আয়ের তুলনায় ৩৫৭ শতাংশ বেড়েছে। এই অভিযোগ ব্যারাকপুর কমিশনারেটে দায়ের হয়। তারপরই তার তদন্তে নেমে এদিয় সিআইডি তল্লাশি অভিযান শুরু করে। 

শীতলখুচি কাণ্ডের পর সাসপেন্ড করা হয়েছিল দেবাশিস ধরকে। সেই মামলার তদন্ত করছে সিআইডি। তারপর এই সম্পত্তি মামলা। যারও তদন্ত শুরু হয়েছে। দেবাশিস ধরের সম্পত্তি কী করে এতটা বৃদ্ধি পেল , সম্পত্তির উৎস সন্ধান সবকিছুই  খতিয়ে দেখছে সিআইডি। তল্লাশি নিয়ে দেবাশিস ধর জানিয়েছেন, সিআইডি আধিকারিকরা তাঁর কাছে এসেছিলেন। তাঁরা যা জানতে চেয়েছিলেন তিনি সব প্রশ্নের উত্তর দিয়েছেন। তদন্তে তিনি পূর্ণ সহযোগিতা করেছেন বলেও জানিয়েছেন। সিআইডি সূত্রের খবর এদিন দেবাশিস ও সুদীপ্তের নামে থাকা সম্পত্তি তল্লাশি করা হয়েছে। সেখান থেকে তেমন গুরুত্বপূর্ণ কিছু পাওয়া যায়নি। কারণ যেসব বাড়ি ও অফিসে তল্লাশি চালান হয়েছে সেগুলি বন্ধ ছিল। 

৫২ বছরেও কি মোস্ট এলিজিবল ব্যাচেলর রাহুল গান্ধী? ভারত জোড়ো যাত্রায় পেলেন বিয়ের প্রস্তাব

বঙ্গ বিজেপির দায়িত্বে মঙ্গল পাণ্ডে, লোকসভা ভোটের জন্য সংগঠন ঢেলে সাজাচ্ছে পদ্ম শিবির

১২ ঘণ্টার ম্যারাথন তল্লাশি গার্ডেনরিচের ব্যবসায়ীর বাড়িতে, ৮টি ট্রাঙ্কে ভরা হল ১৭ কোটি টাকা

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios