সোমবার বিকেলেই ভয়াবহ দুর্ঘটনার হাত থেকে রক্ষা পেলেন ৬৯ জন বিমানযাত্রী। কলকাতা থেকে বাগডোগরাগামী বিমান কলকাতা বিমান বন্দর থেকে ছেড়েছিল ঠিক বিকেল ৪টে বেড়ে ৩৩ মিনিটে। বিমান রানওয়ে ছাড়ার পূর্বেই চালক আঁচ করেন যান্ত্রিক গোলযোগের সমস্যা। মুহূর্তে বিমানে দেখা যায় আগুনের স্ফুলিঙ্গ। বিমানের ভেতরে থাকা সকলের উদ্দেশ্যে সেই খবর জানান চালক। মুহূর্তে সৃষ্টি হয় চাঞ্চল্য। 

আরও পড়ুন- আজকের বাজেট ভারতের আস্থা আর আত্মবিশ্বাসের, প্রধানমন্ত্রী মোদীর প্রশংসা বার্তা

সোমবার নির্দিষ্ট সময়ই কলকাতা বিমানবন্দর ছেড়েছিল স্পাইস জেট এস জি ২৭৫ বিমানটি। যাত্রীর আসন ছিল ভর্তি। ৬৯ জনকে নিয়ে বাগডোগরার উদ্দেশ্যে রওনা দিয়েছিল এই বিমানটি। আগুন লাগার আঁচ পাওয়া মাত্রই তড়িঘড়ি রানওয়েতে ফিরিয়ে আনা হল বিমানকে। কেবিনে থাকা সকলকে বিস্তারিত জানিয়ে তিন চার মিনিটের মধ্যেই ফেরত আসে কলকাতা বিমানবন্দরে বিমানটি। সকলে সুরক্ষিতভাবে সেখান থেকে নামানো হয়। 

এই বিমানে ছিলেন বাংলার ডিজি ভিরেন্দ্র, সিকিউরিটি অ্যাডভাইজার সুরজিত কর পুরকায়স্থ। সকলকে বিমানবন্দরে সুস্থ অবস্থায় নামিয়ে আনার পর ভালো করে পরীক্ষা করা হয় বিমানবন্দরের ইঞ্জিনের। ৪টে বেজে ৩৭ মিনিটেই এই বিমানটি রানওয়েতে ফিরে আসে। বড় সড় বিপত্তির হাত থেকে রক্ষা পেল ৬৯ জন যাত্রী। প্রত্যেককে বিকল্প পরিষেবা দেওয়ার ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।