কলকাতার দক্ষিণ পোর্ট থানার ভূকৈলাশ রোডে অস্বাভাবিক মৃত্য়ু প্রৌঢের।  নাম মনোজ মাহাতো। পেশায় তিনি ফল বিক্রেতা ছিলেন বলে জানা গিয়েছে।

ভূকৈলাশ রোডের একটি ঝুপড়িতে থাকতেন ওই মাঝবয়সী ফলবিক্রেতা।  শুক্রবার সকালে স্থানীয়রা প্রাতঃভ্রমণে  বেরিয়ে দেখতে পান, ওই ঝুপড়ি থেকে কালো ধোঁয়া বের হচ্ছে। ঝুপড়ির দিকে ছুটে  যান কয়েকজন। দেখা যায়, অগ্নিদগ্ধ হয়ে পড়ে রয়েছেন ওই প্রৌঢ়। জল দিয়ে আগুন নেভানোর চেষ্টা করা হয়। খবর দেওয়া দমকলে। যদিও স্থানীয়দের অভিযোগ, দমকল আসে ঘণ্টাদেড়েক বাদে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে আসে দক্ষিণ পোর্ট থানার পুলিশ। দেহ উদ্ধার করে  নিয়ে যাওয়া হয়।

স্থানীয়রা জানান, ওই প্রৌঢ় একাই থাকতেন ঝুপড়িতে। সেভাবে দেখার মতো কেউ ছিল না। ওই ঝুপড়ি থেকে একটি গ্য়াস সিলিন্ডার পাওয়া যায়। তবে আগুন লাগার কারণ কী, তা এখনও স্পষ্ট নয়। পুলিশ তদন্ত শুরু করেছে। দেহটি ময়নাতদন্তের জন্য় নিয়ে যাওয়া হয়েছে।