বর্ষা ইতিমধ্য়েই এসে গিয়েছে। ধীরে ধীরে বৃষ্টি শুরু হতে চলেছে উত্তরবঙ্গ ও সিকিমে। দীর্ঘ অপেক্ষার অবসান। অবশেষে বর্ষার মরশুমের শুভসূচনা আনুষ্ঠানিক ভাবে ঘোষণা করল হাওয়া অফিস।  মৌসুমী বায়ু বঙ্গোপসাগরের উত্তর পূর্ব উপকূলের ওপর দিয়ে এসে প্রথমে ঢুকবে অসমের গোয়ালপাড়ায়। তার পরে আলিপুরদুয়ারে। এই বার্তা আবহাওয়া দফতর কর্তৃক প্রেরিত হওয়ার পরে স্বাভাবিক ভাবেই প্ৰশ্ন উঠছে তাপমাত্রার জেরে নাকাল কলকাতায় শান্তি ফিরবে কবে? 

আবহাওয়া দফতর থেকে জানানো হচ্ছে, আগামী দুই দিন ধরে কলকাতা-সহ হাওড়া, হুগলি, পূর্ব মেদিনীপুর, নদিয়ায়  অস্বস্তি থাকবে,তাপমাত্রা স্বাভাবিকের থেকে তিন চার ডিগ্রি বেশি থাকবে। আর্দ্রতাজনিত অস্বস্তিও থাকবে স্বাভাবিকের থেকে বেশি।  আরও জানানো হচ্ছে, পুরুলিয়া, বাঁকুড়া, দুই বর্ধমান, মালদহ, ঝাড়গ্রামে তাপপ্রবাহ চলবে অন্তত আরও দুই দিন। অবস্থার পরিবর্তন হতে পারে তার পরে। এ বছর গোটা দেশেই বর্ষা আসছে দেরিতে। প্রাক বর্ষার বৃষ্টিও হয়নি। উত্তর প্রদেশ, হরিয়ানা, পঞ্জাবের অবস্থা বিপদসীমা পার করে গিয়েছে। বিহারে এক দিনে মারা গিয়েছে ৭০ জন মানুষ। বর্ষা রাজ্যে ঢুকে গেলেও রাজ্যেও এই অবস্থার সুরাহা এক্ষুণি হবে এমনটা মনে করছে না আবহাওয়া দফতর। 

আগামীকাল দক্ষিণবঙ্গে বৃষ্টি হতে পারে বিক্ষিপ্তভাবে । তবে ৪-৫ দিনে বঙ্গোপসাগরে একটা নিম্নচাপ হতে পারে, তখন বলা যাবে কবে বর্ষা ঢুকবে দক্ষিণবঙ্গে এমনটাই মত আলিপুর আবহাওয়া দফতরের।