পশ্চিমবঙ্গে বর্ষা এসেছে ২১ জুন। বৃষ্টিতে জ্বালা জুড়িয়েছে দক্ষিণবঙ্গের বিস্তীর্ণ অঞ্চলের। তবে বৃষ্টির দেখা পায়ও নি কয়েকটি অঞ্চল। যেমন মালদা ,দুই দিনাজপুর, পুরুলিয়া ,বীরভূম। এবার শান্তি পেলেন এই জেলার বাসিন্দারাও। বর্ষা ঢুকল গোটা পশ্চিমবঙ্গেই।
হাওয়া অফিসের মতে, আগামী ২৪ ঘন্টা কলকাতা-সহ সব জায়গায় বিক্ষিপ্ত  বৃষ্টি হবে। তবে আগামীকাল থেকে বৃষ্টির পরিমান কমবে দক্ষিণবঙ্গে। 

অন্য দিকে উত্তরবঙ্গে বৃষ্টির পরিমাণ বাড়বে ক্রমে । আগামী কাল থেকে বৃষ্টি শুরু হবে উত্তরবঙ্গে। টানা ভারী বর্ষণ চলবে ২৬ জুন পর্যন্ত। পর্বত সংলগ্ন পাঁচটি জেলায় ভারী বৃষ্টি হবে।

প্রসঙ্গত দক্ষিণবঙ্গে কম বৃষ্টি হলে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হবে চাষের। পুরুলিয়া, বাঁকুড়ার মতো জেলাগুলিতে ৬০ শতাংশের বেশি ঘাটতি রয়েছে বৃষ্টির। এই বৃষ্টিতে সেই ঘাটতি মেটানো সম্ভব নয়। এবার বর্ষা শুরু থেকেই খামখেয়ালিপনা করছে। প্রতিবারের তুলনায় ১৫ দিন দেরিতে শহরে এসেছে সে। প্ৰশান্ত মহাসাগরের উষ্ণ জলতল, উত্তর ভারতের তাপপ্রবাহ ইত্যাদি নানা কারণে থমকে ছিল বর্ষার আগমণ। অন্য দিকে তার গতিবিধিতেও নানা পরিবর্তন হয়েছে। প্রতিবার  উত্তরবঙ্গ ভাসিয়ে দক্ষিণে আসে সে। এবার সেই গতিও উল্টে গিয়েছে। আপাতত কিছুক্ষণের স্বস্তি। কলকাতাবাসীর জন্য গুমোট গরম আর আর্দ্র আবহাওয়ার অভিশাপ থাকবে আরও কিছুদিন।