আবহাওয়ার কারণে, ট্রাফিক কন্ট্রোলের কারণে অথবা যান্ত্রিক ত্রুটির কারণে বহুবার ফ্লাইট ডিলে হওয়ার ঘটনা শোনা গিয়েছে। এই ঘটনাগুলি অতি সাধারণ। তবে কলকাতা বিমান বন্দরে এবার এমন এক ঘটনা ঘটল যার জেরে  বিমানটি উড়তেও বেশ অনেকটা সময় দেরি হয়ে যায়। আর এর কারণ হল মৌমাছির আক্রমণ। শুনতে অবাক হলেও একদমই বাস্তব এই ঘটনা। প্রত্যক্ষদর্শীদের মতে, কলকাতা বিমান বন্দরে ঝাঁকে ঝাঁকে মৌমাছির দল এসে ভিস্তারা এয়ারলাইন্সের একটি এয়ারবাস-৩২০ নিও বিমানে হানা দেয়। এমনকি ককপিটের পিছনেও দলে দলে জায়গা করে তারা। আর এই মৌমাছি তাড়াতেই সোমবার নাজেহাল অবস্থা বিমানবন্দরের কর্মীদের।

কলকাতা বিমান বন্দরের আধিকারিকের মতে, কলকাতা বিমান বন্দরের পুরনো বেশ কিছু হ্যাঙ্গারে প্রায়ই বাসা বাঁধে এই মৌমাছি। গত বছরেও এই একই ভাবে এয়ার ইন্ডিয়ার বিমানে জড়ো হয়েছিল তারা, যার জেরে  ফ্লাইট ডিলে হয়। এই বছর সেই ঘটনাই ঘটল ভিস্তারা এয়ারলাইন্সের এয়ারবাসে। এদের ঝামেলা এতটাই বেড়েছে যে মাঝে মাঝেই বিমানের ভিতর ঢুকে পড়ে মৌমাছি। যার জেরে নাজেহাল হতে হয় বিমান কর্মী ও অসুবিধায় পড়তে হয় যাত্রীদের।

 

 

সোমবার বিকেল ৪টে নাগাদ ঘটে এই ঘটনা। ভিস্তারা এয়ারলাইন্সের ফ্লাইটের সময় ছিল বিকেল ৫টায়, এই ঘটনার জেরে এক ঘন্টা ফ্লাইট ডিলে হয়। বিমানের ভিতরে একসঙ্গে এত মৌমাছি দেখে চমকে ওঠেন প্রত্যক্ষদর্শীরা। এরপর এই বিশাল মৌমাছিদের পরাস্ত করতে দমকলবাহিনীর ডাক পড়ে। শক্তিশালী ওয়াটার জেট দিয়ে এই মৌমাছির দলকে তাড়িয়ে বিমান পরিষ্কার করা হয়।