Asianet News BanglaAsianet News Bangla

Halloween 2021: রাত পোহালেই হ্যালোইন, জেনে নিন কেন এমন অদ্ভুত সাজে পালন করতে হয় এই পশ্চিমী উৎসব

আগামীকাল ৩১ অক্টোবর প্রায় বিশ্বজুড়ে পালিত হবে হ্যালোইন উৎসব। পশ্চিমের উৎসব হলেও আজকাল এই উৎসব পালিত হচ্ছে সব কয়টি দেশে। গত কয়েক বছর ধরে ভারতে এই উৎসব বেশ জনপ্রিয় হয়েছে।

find out why this Halloween festival has to be celebrated in such a strange way
Author
Kolkata, First Published Oct 30, 2021, 10:23 AM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

রাস্তা দিয়ে হেঁটে যাচ্ছে অদ্ভুত পোশাক পরিহিত কিছু মানুষ। তাদের মুখের দিকে তাকালে প্রাণ যাওয়ার জো হয়। কারও মাথা দিয়ে রক্ত পড়ছে, কারও ঠোঁটের দুপাশে বড় দাঁত, কারও বা মুখ বিকৃত। তাদের দেখলেই ভুল বলে সকলে চমকে ওঠে। তবে, এই সবই হয়েছে চড়া মেকআপের দৌলতে। উৎসবটা হ্যালোইন (Halloween)। বিদেশে থাকা কোনও আত্মীয়ের মুখে এমন গল্প এক সময় শুনতে সকলেই বেশ আগ্রহ পেত। সে সময় পশ্চিমের এই উৎসব নিয়ে একটা আলাদা আগ্রহ ছিল। কিন্তু, এখন সময় বদলেছে। পশ্চিমের এই উৎসব এখন বিশ্বের সব জায়গায় পালিত হচ্ছে। আর ইন্টরনেটের দৌলতে সকলেই এই ছবি সহজে উপভোগ করছেন।    

আগামীকাল ৩১ অক্টোবর প্রায় বিশ্বজুড়ে পালিত হবে হ্যালোইন উৎসব (Halloween Festival)। পশ্চিমের উৎসব হলেও আজকাল এই উৎসব পালিত হচ্ছে সব কয়টি দেশে। গত কয়েক বছর ধরে ভারতে এই উৎসব বেশ জনপ্রিয় হয়েছে। ৩১ অক্টোবর রাতে সকলেই অদ্ভুত অদ্ভুত পোশাক পরে ভুত সেজে হ্যালোউইন উৎসবে গা ভাসাবেন। জেনে নিন, এই উৎসব কী এবং কেন এমন অদ্ভুত সাজে সেজে উঠতে হয় হ্যলোউইন উৎসবে। 

আরও পড়ুন: Khetur Utsab- মুর্শিদাবাদে শুরু প্রায় ৪৫০ বছরের পুরনো খেতুর উৎসব, এবারও বসছে না মেলা

প্রতি বছর, হ্যালোইন ৩১ অক্টোবর উদযাপন করা হয়। ঐতিহাসিকরা বিশ্বাস করেন যে, প্রাচীন সেল্টিক উৎসব থেকে এসেছে হ্যালোইন উৎসব। সে সময় লোকেরা ভূত থেকে দূরে থাকার জন্য বনফায়ার করতেন এবং এমন পোষাক পরতেন। ইতিহাস ঘাঁটলে জানা যায়, হ্যালোইন বা হ্যালোইন শব্দটি মূলত খ্রিষ্টান ধর্ম থেকে এসেছে। প্রাচীন ইংরেজিতে এই শব্দের উল্লেখ আছে। তবে, অনুমান করা হয় শব্দটি ১৫৫৬ সালের পর আর ব্যবহার করা হয়নি। এই শব্দের অর্থ হল পবিত্র সন্ধ্যা। প্রতি বছর ৩১ অক্টোবর রাতে এই উৎসব পালিত হয়।  

মূলত ইউরোপ এবং আমেরিকার উৎসব হলেও এখন এশিয়াতেও এটি উদযাপন করতে দেখা যায়। শীত এবং গ্রীষ্ম, জীবিত এবং মৃতের মধ্যে পার্থক্য চিহ্নিত করার জন্য এটি উদযাপন করা হয়। কিছু জায়গায়, লোকেরা গির্জা পরিদর্শন করে এবং মোমবাতি জ্বালিয়ে মৃতদের জন্য প্রার্থনা করে। অনেক লোক বিশ্বাস করেন যে মৃত ব্যক্তিরা ফসল ধ্বংস করতে পারে। শীতের জন্য ফসল বাঁচানোর জন্য, লোকেরা বনফায়ার করে পবিত্র আত্মাকে খুশি করে এবং তারা মুখোশও পরে।

আরও পড়ুন: New Launch Of bajaj pulsar-ভারতের বাজারে বাজিমাত বাজাজের, আসছে পালসরের দুই নতুন মডেল

বিদেশে এই উৎসবে সকলেই শুধু অদ্ভুত সাজে সেজে ওঠেন এমন নয়, সঙ্গে অদ্ভুত কার্যকলাপও করেন। এই উৎসবে কুমড়ো খোদাই করার একটি রীতি আছে। শোনা যায়, আয়ারল্যান্ডবাসীরা এদিন হ্যালোইনের পোশাক পরে বাড়িতে বাড়িতে গিয়ে মৃতদের জন্য গান না। আর এদিন কেক খাওয়ার রীতি প্রচলিত আছে।
 

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios