রাস্তার মোড়ে প্রায়ই দেখা যায় ঠেলা গাড়িতে করে বিক্রি হচ্ছে ছাতুর সরবৎ, ছাতু মাখা, আরও কত কী। আবার অনেকে মুড়ি দিয়ে ছাতু খান। মোদ্দা কথা বেশ কয়েকরকম ভাবে খাওয়া যায় ছাতু। উত্তরপ্রদেশ, মধ্যপ্রদেশ, বিহারে এই খাবারের চল বেশি। কিন্তু প্রোটিনে ভরপুর এই খাবার বাঙালির ব্রেকফাস্টে বা সন্ধেবেলার খাবারে তেমন ভাবে জায়গা করে নিতে পারেনি। সে জায়গায় নুডলল বা অন্যান্য প্রসেসড ফুডের রমরমা বেশি। কিন্তু জানেন কি ছাতুতে কত রকমের গুণ রয়েছে। 

ছোলার ডাল দিয়েই প্রধানত তৈরি হয় ছাতু। ছোলার ডালকে সেঁকে পাউডারে পরিণত করা হয়। অনেকে আবার ছোলার ডালের সঙ্গে মটর দানারও পাউডার মিশিয়ে ছাতু বানায় স্বাদ আনার জন্য। খালি পেটে ছাতু খাওয়ার বেশ কিছু উপকারিতা আছে। পেটের সমস্যা দূর করতে বা শরীর থেকে টক্সিন দূর করতে এর জুড়ি মেলা ভার। গরম থেকেও রেহাই পেতে ছাতু খেতে পারেন। 

এক নজরে দেখে নেওয়া যাক ছাতু খেলে কী উপকার পাবেন- 

১) খালি পেটে ছাতু খেলে হজমের সমস্যা অনেকটাই মিটে যায়। এর মধ্যে নুন, আয়রন ও ফাইবার থাকে, যা পেটের সঙ্গে জড়িত সমস্যা থেকে শরীরকে সুস্থ রাখতে সাহায্য করে। 

২) শরীর থেকে অতিরিক্ত টক্সিন বাদ দিতে হলে নিয়মিত ছাতু খান। বিভিন্ন রকমের স্বাস্থ্য সংক্রান্ত সমস্যা দূরে রাখে ছাতু। 

মুসুর থেকে বিউলি ডাল! ৬ রকমের ডালে রয়েছে ভিন্ন গুণ

৩) খালি পেটে ছাতুর সরবৎ খান। বিশেষ করে যাঁদের খিদে পায় না বা মুখে অরুচি থাকে তাঁদের জন্য খুব উপকারী কারণ এতে থাকে পটাশিয়াম ও ম্যাগনেশিয়াম। 

৪) শরীরে মেটাবলিজম বাড়ায়। সহজেই শরীরে ক্যালরি বার্ন করার শক্তি বাড়ায় ছাতু। 

৫) ছাতু খালি পেটে খেলে শরীরে রেড ব্লাড সেলের বৃদ্ধি হয়।  রেড ব্লাড সেলের পরিমাণ বেড়ে গেলে শরীরে অক্সিজেনও বাড়ে, যার ফলে এনার্জিও থাকে সারাদিন। 

৬) গরমে ছাতুর সরবত অবশ্যই খান। শরীরকে হাইড্রেটেড রাখে ছাতু। পেট ঠান্ডা রাখতেও এর জুড়ি মেলা ভার। 

৭) ডায়াবেটিসের ও উচ্চ রক্তচাপের রোগীরা নিয়মিত এক গ্লাস ছাতুর সরবৎ খান। ব্লাড সুগার লেভেন নিয়ন্ত্রণে থাকে।