আজ রাখি বন্ধন উৎসব। সারা দেশজুড়ে মহা সমারোহে এই রাখি বন্ধন উৎসব পালিত হয়। কিন্তু করোনার আবহে এই বছরে সেই উৎসব ফিকে হয়েছে। এই বছরের রাখি বন্ধন উৎসব বেশিরভাগ মানুষই ভার্চুয়ালি পালন করবেন। রাখি ও ভাইফোঁটা এই দুটি উৎসব মানেই একেবারে আলাদা। তার সঙ্গে গিফটের পালা। একে অপরকে উপহার দিয়ে সারপ্রাইজ করে দেওয়ার পালা। উপহার তো কিনবেন, কিন্তু জানেন কি রাখির এই শুভ বন্ধন উৎসবে উপহার হিসেবে এই  জিনিসগুলি ভাই-বোনেদের দেওয়া নেওয়া  একেবারেই ঠিক নয়। জেনে নিন কী কী রয়েছে সেই তালিকায়।

আরও পড়ুন-দুশ্চিন্তায় রাতে ঘুম আসছে না, ভয়ঙ্কর সমস্যায় পড়তে চলেছেন আপনি...

রুমালঃ   রুমাল এবং তোয়ালে অত্যন্ত প্রয়োজনীয় জিনিস। কথাই আছে রুমাল দিলে সম্পর্ক নষ্ট হয়। তাই ভুল করেও কেউ কাউকে তা রাখির উপহারে তা কখনওই দেবেন না। তাতে দুজনের বিবাদ আরও বাড়তে পারে।  এমনকী সম্পর্কেও চিড় ধরতে পারে ।

 

পেনঃ আপনার বোন কিংবা ভাইয়ের লেখায় প্রতি প্রবল আগ্রহ রয়েছে। সময় পেলেন গল্প, কবিতা লেখেন। কিন্তু রাখি উৎসবে  ভুলেও পেন উপহার দেবেন না। অনেকেই বলে তাতে তার দক্ষতার অবনমন হতে পারে।
 


 

অ্যাকোরিয়ামঃ অনেকেই আছেন যারা অ্যাকোরিয়াম ভালবাসেন। ভালবাসলেই তা দিতে হবে এমনটা নয়। কিন্তু ভাই-বোনেরা উপহার হিসাবে কখনওই এই জিনিস দেওয়া নেওয়া করবেন না। তাতেও সম্পর্কে ভাঙন ধরতে পারে।

 

ঠাকুরের মূর্তিঃ অনেকেই ঠাকুরের মূর্তি ভালবাসেন। তাই বলে ঠাকুরের মূর্তি উপহার দেবেন না। যিনি উপহার নিচ্ছেন তিনি যদি সঠিকভাবে ওই ঠাকুরের সেবা করতে না পারেন, তাহলে উভয়েরই চরম ক্ষতি হতে পারে। তাই ভুল করেও এই ধরনের জিনিস উপহার না দেওয়াই ভাল।


আনন্দের উৎসবে এই উপহারগুলি কখনওই দেওয়ার জন্য বাছবেন না। এই জিনিসগুলি বাদ দিয়ে উপহার দিন ভাই কিংবা বোনকে। সবসময় উপহার যে দামি হতে হবে তা নয়, বরং প্রিয়জনের থেকে পাওয়া যেকোনও জিনিসই খুবই গুরুত্ব