২০২০ সালে টোকিও অলিম্পিক। একের পর এক ভারতীয় ক্রীড়াবিদ অলিম্পিকে খেলার যোগ্যতা অর্জন করেছেন। আরও একাধিক ক্রীড়াবিদ অলিম্পিকে যাওয়ার সুযোগ তৈরি করেছেন। এই অবস্থায় কতটা এগিয়েছে ভারতের অলিম্পিক প্রস্তুতি? সেটা নিয়েই দেশের ক্রীড়ামন্ত্রী অমিত শাহের সঙ্গে দেখা করলেন ভারতীয় অলিম্পিক সংস্থার প্রধান নরেন্দ্র বাত্রা। দেশের গৃহ মন্ত্রীর হাতে একটি স্মারক তুলে দেন তিনি। নরেন্দ্র বাত্রা,  আমিত শাহের সঙ্গে দেখা করে দশের অলিম্পিক প্রস্তুতির বিষয়ে নানান তথ্য তুলে ধরেন। একই সঙ্গে আলোচনা হয়, ফিট ইন্ডিয়া মুভমেন্ট, টার্গেট অলিম্পিক পোডিয়াম স্কিম, খেলো ইন্ডিয়া ইউথ গেমসের বিষয়েও আলোচনা হয় দুজনের মধ্যে। 

 

 

আরও পড়ুন - ক্রীড়া বিশ্বে বড় খবর, ডোপিং কাণ্ডে চার বছরের জন্য নির্বাসিত রাশিয়া

নরেন্দ্র বাত্রা ভারতীয় অলিম্পিক সংস্থার প্রধান হওয়ার পাশাপাশি বিশ্ব হকি সংস্থার প্রধানও। তাই ২০২৩ সালের জানুয়ারি মাসে দেশের মাঠে অনুষ্ঠিত হতে চলা পুরুষদের হকি বিশ্বকাপ নিয়েও খোঁজ খবর নেন দেশের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী অমিত শাহ। ওড়িশার ভুবনেশ্বর ও রাউলকেল্লায় হবে হকি বিশ্বকাপ। ইন্টারন্যাশনাল হকি ফেডারেশনের এই ঘোষণার পর থেকেই প্রস্তুতি শুরু করেছে ভারত। পাশাপাশি অমিত শাহ ভারতের হকির অন্দরের নানান প্রশ্নেও কেরন বাত্রার কাছে। দেশের তৃণমূল স্তরে হকির উন্নতির জন্য কী কী কাজ করা হচ্ছে সেটা নেয়েও খোঁজও নেন স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী। 

আরও পড়ুন - আইসিসি’র বিরুদ্ধে লড়াই, ইংল্যান্ড বোর্ডের কর্তাদের সঙ্গে বৈঠক করবেন সৌরভরা

২০২৩ সালে ভারতে আন্তর্জাতিক অলিম্পিক সংস্থার বৈঠকের পরিকল্পনাও করছে ভারত। ২০২৩ সাল ভারতের ৭৫ তম স্বাধীনতার বছর। তাই সেই বছরেই ভারতে অলিম্পিক কমিটির বৈঠক ভারতে আয়োজন করতে চায় আইওএ। আন্তর্জাতিক সংস্থা এই বিষয়ে অনুমতির অপেক্ষা। একই সঙ্গে ২০২৬ সালে দেশের মাটিতে যুব অলিম্পিক করার দাবি জানাতে চলেছে ভারত। তিনটি কেন্দ্রকে নিয়ে এই পরিকল্পনা করা হয়েছে, দিল্লি, ওড়িশা ও মুম্বই। একই সঙ্গে অমিত শাহ আস্বস্ত করেছেন দেশের নতুন অস্ত্র আইনে শ্যুটাররা কোনও ভাবেই সমসার মধ্যে পরবেন না। 

আরও পড়ুন - শ্রীলঙ্কার হাত ধরে দশ বছর পর টেস্ট ক্রিকেট ফিরছে পাকিস্তানে