ভোটের আগে দলের বিরুদ্ধে একের পর এক বেসুরো মন্তব্য করছেন তৃণমূলের নেতাকর্মীরা। বাড়ছে দল বদলের হিড়িক। এর জেরে বেজায় অস্বস্তিতে পড়েছে তৃণমূল কংগ্রেস। উত্তরবঙ্গের জেলাগুলির সাংগঠনিক অবস্থা কী রকম। তা খতিয়ে দেখতে উত্তরবঙ্গ সফর করলেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্য়ায়।

আরও পড়ুন-'দুয়ারে গেলে পেটাবে মানুষ' - বেসুরো পঞ্চায়েত প্রধান, লক্ষ্মী-বিদায়ে টলমল হাওড়া তৃণমূল

বুধবার জলপাইগুড়িতে একগুচ্ছ কর্মসূচি নিয়ে হাজির হয়েছেন অভিষেক। দলের অন্দরে কোনও ফাঁকফোকর আছে কিনা। তা খতিয়ে দেখতেই জলপাইগুড়িতে নেতাকর্মীদের সঙ্গে বৈঠক করেন অভিষেক। তাঁদের সঙ্গে কথা বলেন। সাংগছনিক স্তরে তাঁদেলর কোনও সমস্য়া আছে কিনা। তাও জানার চেষ্টা করেন অভিষেক। শুধু তাই নয়, ভোট বৈতরণী পার করতে সকলকে একসঙ্গে চলার বার্তা দেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্য়ায়। বুধবার সকালে জল্পেশ মন্দিরে পুজো দিয়ে জলপাইগুড়ি সফর শুরু করেন অভিষেক। মন্দিরে গিয়ে হাঁটু গেড়ে ভগবানের কাছে প্রার্থনা করেন তিনি।

আরও পড়ুন-ভোটে গুরুত্ব বাড়ছে নন্দীগ্রামের, ১৮ জানুয়ারি শুভেন্দুকে জবাব দিতে মমতার সভা

জল্পেশ মন্দিরে গিয়ে পুরোহিতের সঙ্গে কথাও বলেন অভিষেক। এলাকার উন্নয়ন ও মন্দিরের উন্নয়ন নিয়ে অভিষেকের কাছে দাবি জানান পুরোহিত। দ্রুত উন্নয়ন হবে বলে তাঁকে আশ্বাস দেন ডায়মন্ড হারবারের সাংসদ। পঞ্চানন বর্মার মূর্তিতে মাল্যদান করে চালসায় চলে যান অভিষেক। সেখানে সাতটি বিধানসভার কর্মী সমর্থকদের নিয়ে বৈঠক করেন তিনি।