'দিদি যাচ্ছে আসল পরিবর্তন আসছে' বাংলাতেই রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী তথা তৃণমূল সুপ্রিমোকে আক্রমই করলেন প্রাধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। কাঁথির জনসভায় তিনি বলেন ২ মে আসল পরিবর্তন আসছে। একই সঙ্গে আম্ফানের টাকা নিয়ে শাসকদলকে নিশানা করেন তিনি। 

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বলেন, রাজ্যের প্রতিটি এলাকা, প্রতিটি বাসিন্দার মুখ থেকে একই আওয়াজ উঠেছে। তা হল ২ মে দিদি যাচ্ছে। আর আসল পরিবর্তন আসছে। তিনি বলেন আম্ফানের জন্য কেন্দ্রীয় সরকার  যে টাকা পাঠিয়ে ছিল তার কোনও হিসেব দিতে পারেননি দিদি। তিনি বলেন কেন্দ্র যে টাকা রাজ্যে পাঠিয়েছিল তা আটতে গেছে 'ভাইপো  উইন্ডো'তে। তারপরই তিনি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উদ্দেশ্যে প্রশ্ন ছুঁড়ে দিয়ে বলেন, দিদি বাংলার মানুষ জানতে চাইছে আম্ফানের টাকা কে লুঠ করেছে। তিনি অভিযোগ করে বলেন, কেন্দ্র থেকে পাঠান টাকা তৃণমূলের তোলাবাজদের হাতে নষ্ট হচ্ছে। তিনি আরও বলেন আম্ফানের তাণ্ডবের পর অনেক মানুষই আশ্রয়হীন অবস্থায় দিন কাটাচ্ছেন। অনেকের মাথাতেই ছাদ নেই। কিন্তু তাঁদের পাশে দাঁড়াতে দেখা যায়নি মুখ্যমন্ত্রীকে। আর এখন ভোট আসান তিনি দুয়ারে সরকারের প্রতিশ্রুতি দিচ্ছেন। রাজ্যের ছোট ছোট শিশুরাই বুঝতে পেরেছে এটা তৃণমূলের খেলা। আর এই খেলা খুব তাড়াতাড়ি শেষ হবে। 

করোনা-মহামারির সঙ্গে যুদ্ধের একটা বছর পার, ফিরে দেখা লকডাউনের দিনগুল

আদিবাসী ভোট ঠিক করবে বিনপুরে তৃণমূলের ভাগ্য, বিজেপিও পিছিয়ে নেই ...

কাঁথির জনসভা থেকেও নন্দীগ্রাম ইস্যুতে সরব হয়েছেন নরেন্দ্র মোদী। তিনি বলেন, নন্দীগ্রাম রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীকে অনেক কিছুই দিয়েছে। কিন্তু আর এখন তিনি সেই নন্দীগ্রামের মানুষেরই বদনাম করছেন। নন্দীগ্রামের অভিমানী মানুষ তার জবাব দেবে বলেও জানিয়েছেন তিনি। এদিনের জনসভায় একবারও নরেন্দ্র মোদী সরাসরি মুখ্যমন্ত্রীর পায়ের আঘাতের প্রসঙ্গ তোলেননি। তবে তিনি সুকৌশলেই নন্দীগ্রামে তাঁর পায়ে চোটলাগার বিষয়টিকে ব্যবহার করেছেন।